প্রিমিয়ার ফুটবল লিগ মাঠে গড়াচ্ছে শুক্রবার

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৯:২৪ পিএম, ১৭ জানুয়ারি ২০১৯

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার ফুটবল লিগের দশম আসর শেষ হয়েছে গত বছর ১৩ জানুয়ারি। বর্ষা এড়িয়ে শীতে ফুটবল আয়োজনের পরিকল্পনায় বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন এবার পিছিয়ে দিয়েছে মৌসুম। যে কারণে দুটি লিগের মাঝে বিরতি বছরেরও অধিক। ঠিক এক বছর ৬ দিন পর শুক্রবার মাঠে গড়াবে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের একাদশ আসর।

বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে উদ্বোধনী দিনে দুটি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে। বিকেলে সাড়ে ৩টায় গতবারের চ্যাম্পিয়ন আবাহনী খেলবে চ্যাম্পিয়নশিপ লিগ রানার্সআপ হয়ে প্রিমিয়ারে ওঠা নোফেল স্পোর্টিং ক্লাবের বিরুদ্ধে। সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় মুখোমুখি হবে গতবারের রানার্সআপ শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব ও চ্যাম্পিয়নশিপ লিগ চ্যাম্পিয়ন হয়ে প্রিমিয়ারে ওঠা বসুন্ধরা কিংস।

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ শুরু হওয়ার কথা ছিল ফেডারেশন কাপের পর ৩০ নভেম্বর। জাতীয় সংসদ নির্বাচনের কারণে বাফুফে লিগ পিছিয়ে দিয়ে আয়োজন করে স্বাধীনতা কাপ। দেড় মাসের বেশি পিছিয়ে দেয়ায় প্রিমিয়ার লিগ আগামী বর্ষাই পেয়ে যাবে। প্রফেশনাল লিগ কমিটি যে ফিকশ্চার করেছে তাতে প্রথম পর্ব শেষ হবে ২০ এপ্রিল। সে হিসেবে জুলাইয়ে গিয়ে শেষ হবে লিগ। বৃষ্টি-বাদলে খেলা বিঘ্ন হওয়ার আশঙ্কা থেকেই যাচ্ছে।

এবারের প্রিমিয়ার লিগে খেলছে ১৩ ক্লাব। পুরোনো আবাহনী, শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব, চট্টগ্রাম আবাহনী, সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব, মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব লিমিটেড, শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র, আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ, ব্রাদার্স ইউনিয়ন, বিজেএমসি, রহমতগঞ্জ ও মুক্তিযোদ্ধার সঙ্গে দুই নবাগত বসুন্ধরা কিংস ও নোফেল স্পোর্টিং ক্লাব।

এবার খেলা হবে ৬ ভেন্যুতে। মোহামেডান, আবাহনী, শেখ জামাল, চট্টগ্রাম আবাহনী, ব্রাদার্স ও রহমতগঞ্জের হোম ভেন্যু ঢাকার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়াম। শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্রের হোম ভেন্যু সিলেট, সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব ও আরামবাগের ময়মনসিংহ, মুক্তিযোদ্ধার গোপালগঞ্জ, বিজেএমসি ও নোফেলের নোয়াখালী এবং বসুন্ধরা কিংসের নীলফামারী স্টেডিয়াম। ৮ ভেন্যুতে লিগ করার সিদ্ধান্ত হলেও শেষ মুহুর্তে বাদ পড়েছে চট্টগ্রাম এমএ আজিজ স্টেডিয়াম ও ফরিদপুর শেখ জামাল স্টেডিয়াম।

আরআই/আইএইচএস/এমকেএইচ