ওষুধ কিনতে গিয়ে গৃহবধূ নিখোঁজ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি পাবনা
প্রকাশিত: ০৫:৫৩ এএম, ২৪ জানুয়ারি ২০২১

পাবনার সাঁথিয়ায় ওষুধ কিনতে গিয়ে অন্তরা (২০) নামের এক গৃহবধূ নিখোঁজ হয়েছেন। বৃহস্পতিবার (২১ জানুয়ারি) উপজেলার আতাইকুলা থানার চরপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় শনিবার (২৩ জানুয়ারি) পুলিশের কাছে মৌখিকভাবে অভিযোগ দিয়েছে নিখোঁজ গৃহবধূর পরিবার।

ভুক্তভোগী পরিবারের বরাত দিয়ে স্থানীয়রা জানান, চরপাড়া গ্রামের ইদ্রিস আলীর মেয়ে অন্তরার দুই বছর আগে একই গ্রামে ফুফাত ভাই হাবিবুল্লাহর সঙ্গে বিয়ে হয়। হাবিবুল্লাহ তাকে শ্বশুর বাড়ি রেখে বিদেশে ছিলেন। তিনি কয়েক মাস আগে দেশে ফেরেন। অন্তরা এরপর থেকে শ্বশুর বাড়ি ও বাবার বাড়ি থাকতেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক অন্তরার কয়েক প্রতিবেশী জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরে অন্তরা তার স্বামীকে মোবাইলে জানান ধর্মবোন আঞ্জুয়ারার সঙ্গে ওষুধ কিনতে বাড়ি থেকে দুই কিলোমিটার দূরে গাঙ্গহাটি যাচ্ছেন।

আঞ্জুয়ারা পরদিন শুক্রবার বাড়ি ফিরে আসেন। তবে অন্তরা ফিরে না আসায় বাড়ির লোকজন আঞ্জুয়ারার কাছে তার অবস্থান জানতে চান। আঞ্জুয়ারা তখন অসংলগ্ন কথা বলা শুরু করেন। তিনি একবার বলেন, ‘অন্তরা একজনের সঙ্গে ভেগে গেছেন। আবার বলেন, তাকে নারী ব্যবসায়ীরা নিয়ে গেছেন।’

এ ঘটনায় পরিবারের সদস্যরা শনিবার আতাইকুলা থানায় মৌখিক অভিযোগ দেন। পরে পুলিশ গিয়ে অন্তরা ও আঞ্জুয়ারার পরিবারের লোকজনের সঙ্গে কথা বলে। তবে পুলিশ আসার সংবাদ পেয়ে আঞ্জুয়ারা গা ঢাকা দেন। আঞ্জুয়ারা চরপাড়া গ্রামের প্রবাসী রফিকুল ইসলামের স্ত্রী।

আতাইকুলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, অন্তরার পরিবারের লোকজন মৌখিক অভিযোগ দিয়েছেন। সে অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে পুলিশ খোঁজখবর নেয়া শুরু করেছে। পুলিশ ওই গৃহবধূকে উদ্ধারের চেষ্টা শুরু করেছে বলে জানান তিনি।

আমিন ইসলাম/ইএ

 

 

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]