পরাজিত প্রার্থীর কর্মীকে হত্যাচেষ্টা, কারাগারে ইউপি মেম্বার

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি লক্ষ্মীপুর
প্রকাশিত: ০৮:৫৯ পিএম, ০২ ডিসেম্বর ২০২১

লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জে পরাজিত এক ইউপি মেম্বারপ্রার্থীর কর্মীকে হত্যাচেষ্টা মামলায় নবনির্বাচিত মেম্বারসহ চারজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (২ ডিসেম্বর) বিকেলে তাদের আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়। এরআগে বুধবার (১ ডিসেম্বর) রাতে এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতাররা হলেন-উপজেলার দরবেশপুর ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বার সোহাগ এবং তার কর্মী সোহেল হোসেন, মো. শুভ ও মো. জহির। তারা দরবেশপুর ইউনিয়নের আইয়েনগর গ্রামের বাসিন্দা।

এজাহার সূত্র জানায়, ভুক্তভোগী মিন্টু সংরক্ষিত ওয়ার্ডের পরাজিত মেম্বারপ্রার্থী শাহিদা আক্তার রুমার কর্মী। মঙ্গলবার (৩০ নভেম্বর) দুপুরে ইউনিয়নের আইয়েননগর গ্রামে ব্রিজের ওপর অভিযুক্তরা মিন্টুর ওপর হামলা করেন। এসময় তাকে জবাই করে হত্যাচেষ্টা চালানো হয়। আশপাশের লোকজন এগিয়ে এলে হামলাকারীরা পালিয়ে যান। পরে মিন্টুকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ও পরে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এ ঘটনায় মিন্টুর স্ত্রী নার্গিস সুলতানা বাদী হয়ে রামগঞ্জ থানায় বুধবার মামলা করেন। মামলায় সোহাগসহ পাঁচজনকে আসামি করা হয়।

নার্গিস সুলতানার দাবি, সোহাগের ভোট না করে সংরক্ষিত নারী মেম্বারপ্রার্থীর পক্ষে প্রচারণা চালান তার স্বামী। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে তার স্বামীকে হত্যাচেষ্টা করেন অভিযুক্তরা।

রামগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন বলেন, গ্রেফতারের পর অভিযুক্ত চারজনকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

কাজল কায়েস/এসআর/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]