কানে ইয়ারফোন লাগিয়ে রেললাইন পারের সময় প্রাণ গেলো কিশোরের

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি পাবনা
প্রকাশিত: ০৮:৩৩ পিএম, ২৫ জুন ২০২২

পাবনার বেড়ায় ট্রেনে কাটা পড়ে নিরব (১৬) নামের এক স্কুলছাত্রের মৃত্যু হয়েছে। শনিবার (২৫জুন) সকালে ঢালারচর-রাজশাহী রেললাইনে বেড়া উপজেলার মাসুমদিয়ায় এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিরব সুজানগর উপজেলার রানিনগর ইউনিয়নের ভাটিয়া গ্রামের লিটন সরদারের ছেলে। সে ঢাকার উত্তরার একটি স্কুলের নবম শ্রেণির ছাত্র ছিল। সে কানে ইয়ারফোন লাগিয়ে রেললাইন পার হচ্ছিল।

স্থানীয় ও নিহত স্কুলছাত্রের পরিবার সূত্র জানায়, সম্প্রতি নিজেদের গ্রামের বাড়ি বেড়া উপজেলার ভাটিয়া গ্রামে বেড়াতে আসে নিরব। এরপর বেড়ার পুরান ভারেঙ্গা ইউনিয়নের পুরান মাসুমদিয়া গ্রামে নানা আব্দুল হামিদ ব্যাপারির বাড়িতে বেড়াতে যায়। শনিবার সকালে নিরব কানে ইয়ারফোন লাগিয়ে রেললাইন পার হচ্ছিল। এ সময় ঢালারচর থেকে ছেড়ে আসা রাজশাহীগামী ঢালারচর এক্সপ্রেস ট্রেন হুইসেল দিলেও সে শুনতে পায়নি। এতে পেছন থেকে ট্রেনের ধাক্কায় রাস্তার পাশে ছিটকে পড়ে ঘটনাস্থলেই সে মারা যায়। পরে এলাকাবাসী আমিনপুর থানায় খবর দেন।

আমিনপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রওশন আলী ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, পুলিশ খবর পেয়ে মরদেহ উদ্ধার করেছে। পরে দুপুরে ঈশ্বরদী রেলওয়ে পুলিশের (জিআরপি) কাছে হস্তান্তর করা হয়।

ঈশ্বরদী জিআরপি থানার ওসি গোপাল কর্মকার জানান, ময়নাতদন্ত শেষে মরদেহ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

আমিন ইসলাম জুয়েল/এসআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]