পুলিশকে কামড়িয়ে হাতকড়াসহ পালিয়েছে আসামি

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি নোয়াখালী
প্রকাশিত: ০৮:১৫ এএম, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে মাদকসহ আটকের পর ইসমাইল হোসেন বয়াতি (৪৫) নামের এক আসামি পুলিশকে কামড়িয়ে হাতকড়াসহ পালিয়ে যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে। আহত সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) রবিউল হোসেনকে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

বুধবার (২৮ সেপ্টেম্বর) বিকেলে বসুরহাট পৌরসভা ৮ নম্বর ওয়ার্ডে জামাইরটেক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। তিনি ওই এলাকার নোয়াব আলী স্বর্ণকার বাড়ির আলী আজমের ছেলে। রাতে অভিযান চালিয়ে নারীসহ সাতজনকে আটক করে পুলিশ।

কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সাদেকুর রহমান জানান, ফেনী থেকে নারী বাহকের মাধ্যমে মাদক বেচাকেনার খবরে অভিযান চালায় পুলিশ। ৫০০ গ্রাম গাঁজাসহ আটকের পর এএসআই রবিউলকে আহত করে হাতকড়াসহ পালিয়ে যান ইসমাইল হোসেন বয়াতি। পরে পরিত্যক্ত অবস্থায় হাতকড়াটি উদ্ধার করলেও আসামিকে এখনো আটক করা যায়নি। তবে এ ঘটনায় জড়িত নারীসহ সাতজনকে আটক করা হয়েছে।

স্থানীয়রা জানায়, ইসমাইল হোসেন বয়াতি ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা চালানোর আড়ালে মাদকের ব্যবসা করে আসছেন। বুধবার বিকেলে গাঁজাসহ আটকের পর তার মামা মোশারেফ (১৯), সৌরভ (২৪), মামাতো ভাই কালা (১৯) ও প্রতিবেশী ইমনসহ (২৪) কয়েকজন পুলিশের ওপর হামলা চালিয়ে তাকে ছিনিয়ে নিয়ে যায়।

ইকবাল হোসেন মজনু/আরএইচ/এএসএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।