আইডিয়াল স্কুলে ভর্তি পরীক্ষার সময় নির্ধারণ

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬:২১ পিএম, ১০ নভেম্বর ২০১৮

ভর্তি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে রাজধানীর মতিঝিল আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজ। আগামী ১০ নভেম্বর থেকে অনলাইন আবেদন ফরম পূরণ কার্যক্রম শুরু হয়ে ২০ নভেম্বর পর্যন্ত চলবে। তিন শাখায় আলাদাভাবে ২০১৯ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা ও ১ম শ্রেণির লটারি আয়োজন করা হবে। শনিবার স্কুলের ওয়েবসাইটে এ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে দেখা গেছে, মতিঝিল আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজে প্রথম শ্রেণি থেকে ৭ শ্রেণিতে ভর্তির জন্য আবেদন আহ্বান করা হয়েছে। মতিঝিল, মুগদা ও বনশ্রী শাখায় শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। এর মধ্যে মতিঝিল শাখায় প্রভাতি-দিবায় বাংলা ভার্সনে প্রথম থেকে ৭ম শ্রেণি পর্যন্ত ৬৬০টি আসন, বনশ্রী শাখায় প্রভাতি-দিবায় ৯০০টি এবং মুগদা শাখার প্রভাতি-দিবায় ৬১০টি শূন্য আসন রয়েছে।

এ ছাড়াও মতিঝিল শাখায় ইংলিশ ভার্সনে বালক-বালিক মিলে ৩১০টি ও বনশ্রী শাখায় ইংলিশ ভার্সনে ৬৯০টি শূন্য আসনে প্রথম শ্রেণি থেকে ৭ম শ্রেণি পর্যন্ত ভর্তি করা হবে। ভর্তি নীতিমালা অনুযায়ী ৪০ শতাংশ ক্যাচমেন্ট এলাকা কোটা নির্ধারিত থাকবে। এ ছাড়াও ভর্তির ক্ষেত্রে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে ১১ শতাংশ কোটা রাখা হয়েছে।

পাশাপাশি জেএসসি-জেডিসির ফল প্রকাশের পর ৯ম শ্রেণির ভর্তির জন্য ৩ জানুয়ারি থেকে ১২ জানুয়ারি পর্যন্ত অনলাইন আবেদন গ্রহণ শুরু হবে। শিক্ষা বোর্ডের মেধা তলিকার ভিত্তিতে ৯ম শ্রেণিতে ভর্তি করা হবে। তবে ভর্তির জন্য বিজ্ঞান বিভাগে জিপিএ-৫ ও ব্যবসায় শিক্ষায় জিপিএ-৪ দশমিক ৫ চাওয়া হয়েছে।

বলা হয়েছে, আগামী ১০ থেকে ২০ নভেম্বর পর্যন্ত আবেদন গ্রহণ করা হবে। প্রতিটি আবেদন ফি ২০৫ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। আবেদন গ্রহণ শেষে তিন শাখায় আলাদাভাবে ১০ ও ১১ ডিসেম্বর প্রথম শ্রেণির লাটারি আয়োজন করা হবে। লটারির ফলাফল সেদিন বিকেলে ঘোষণা করা হবে। ২য় থেকে ৭ শ্রেণি পর্যন্ত ভর্তি পরীক্ষার মাধ্যমে ভর্তি করা হবে। তিনটি শাখায় ১২, ১৩ ও ১৪ ডিসেম্বর ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। পরবর্তী ১৯, ২০ ও ২১ ডিসেম্বর ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হবে। সব অসম্পূর্ণ ফরম বাতিল বলে গণ্য করা হবে বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে মতিঝিল আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ ড. শাহিন আরা বেগম জাগো নিউজকে বলেন, ‘শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা থাকায় আমাদের সব বার্ষিক পরীক্ষা ১০ ডিসেম্বরের মধ্যে শেষ করা হবে। তবে লটারি ১০ ও ১১ ডিসেম্বর এবং ভর্তি পরীক্ষা ১২ থেকে ১৪ ডিসেম্বর পর্যন্ত তিনটি শাখায় আলাদাভাবে আয়োজন করা হবে।’

তিনি বলেন, ‘আমরা শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে আলোচনা করে ভর্তি পরীক্ষার সময় নির্ধারণ করেছি। এ সময় লটারি ও পরীক্ষা নিতে কোনো সমস্যা হবে ন। জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষার ফল প্রকাশের পর ৯ম শ্রেণির ভর্তির আবেদন কার্যক্রম শুরু করা হবে।’

এমএইচএম/এনডিএস/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :