শ্রেষ্ঠত্বের লড়াইয়ে মীরসরাইয়ের ৫৭ শিক্ষার্থী

মুহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল মামুন
মুহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল মামুন মুহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল মামুন , আমিরাত প্রতিনিধি
প্রকাশিত: ০৯:০৬ পিএম, ২৩ নভেম্বর ২০১৯

মাধ্যমিক পর্যায়ে তারা নিজ নিজ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সেরা শিক্ষার্থী। ছাত্র এবং ছাত্রী বিবেচনায় প্রায় প্রত্যেকের শ্রেণি রোল নম্বর এক। প্রতিষ্ঠানের প্রধান শিক্ষকদের দ্বারা মনোনীত এমন শিক্ষার্থীরাই নিজেদের শ্রেষ্ঠত্ব অর্জনের লড়াইয়ে অংশগ্রহণ করে ‘অদম্য সেরাদের সেরা’ প্রতিযোগীতায়। মীরসরাই উপজেলার সামাজিক ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘অদম্য-২০০৫’ এই প্রতিযোগিতার আয়োজন করে। এবার ছিল প্রতিযোগিতার তৃতীয় আসর।

শুক্রবার (২২ নভেম্বর) উপজেলার ২৯টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ৫৭ জন শিক্ষার্থীকে নিয়ে মীরসরাই সরকারি মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত লিখিত পরীক্ষা। লিখিত পরীক্ষায় সর্বোচ্চ নম্বর প্রাপ্তদের মধ্য থেকে ২০ জনকে নিয়ে আগামী ২০ ডিসেম্বর মৌখিক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। তার আগে আগামী ১ ডিসেম্বর লিখিত পরীক্ষার ফলাফল ঘোষণা করা হবে।

এ সময় পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শন করেন মীরসরাই উপজেলা চেয়ারম্যান জসিম উদ্দিন, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ইয়াছমিন শাহীন কাকলী, মীরসরাই পৌর মেয়র গিয়াস উদ্দিন, কাটাছড়া ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ও সংগঠনের আজীবন সদস্য নুরুল আনোয়ার সবুজ, উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি রাসেল ইকবাল চৌধুরী, সহ-সভাপতি রিয়াজ বিন আলী, কাটাছড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শামীম চৌধুরী, মীরসরাই স্পোর্টিং ক্লাবের সভাপতি জসিম উদ্দিন দুলাল, মীরসরাই উপজেলা স্বেচ্চাসেবী সংস্থার সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার আশরাফ উদ্দিন সোহেল প্রমুখ।

অদম্য-২০০৫ এর সভাপতি এনামুল হক সোহাগের পরিচালনায় ও সাধারণ সম্পাদক নিয়াজ মোহাম্মদ সাজেদের ব্যবস্থাপনায় পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক ছিলেন মীরসরাই মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক হোসাইন সবুজ। পরীক্ষার সার্বিক তত্ত্বাবধানে ছিলেন অদম্য-২০০৫ এর যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাসান আরিফ সবুজ। এ সময় উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক, স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের নেতারা ও অদম্য-২০০৫ এর সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, এবারের প্রতিযোগিতার মূল স্পন্সর দ্বি-মাসিক পত্রিকা ‘পজিটিভ মীরসরাই’। নির্বাচিত আইডলকে ‘পজিটিভ মীরসরাই’এর পক্ষ থেকে শিক্ষা উপকারণ হিসেবে একটি ল্যাপটপ পুরস্কৃত দেয়া হবে। এ ছাড়া আয়োজকদের পক্ষ থেকে সেরা ২০ জন প্রতিযোগীকে পুরস্কৃত করা হবে।

এমআরএম/এমকেএইচ