সজল-অপর্ণার গল্পটা কী?

বিনোদন প্রতিবেদক
বিনোদন প্রতিবেদক বিনোদন প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১২:৪২ পিএম, ২০ জুলাই ২০১৯

তিশা, মায়া ও নাইম তিন বন্ধু। হঠাৎ করেই তারা প্ল্যান করে নেপালে আসবে। মায়া ও নাইমের কোন ঝামেলা না থাকলেও তিশা পারিবাররিক বাঁধার সম্মুখিন হয়। তিশার পরিবার বেশ রক্ষনশীল।

বন্ধু বান্ধবের সাথে ঢাকার বাইরে যেতে দিতেই তারা নারাজ। সেখানে তো দেশের যেতে দেয়ার প্রশ্নই ওঠে না। এদিকে তিশার বিয়ে ঠিক হয়েছে। তাই তিশা ও মায়া মিলে তিশার বাবাকে কনভিন্স করে যাওয়ার জন্যে। কারণ বিয়ের পরে তো আর বন্ধুদের সাথে এভাবে কোথাও যাওয়া হবে না। তিশার বাবা তাই যাওয়ার অনুমতি দেন।

তিশা ও মায়ার সাথে বাজি ধরে নাইম বিদেশি এক তরুণীর সাথে খাতির জমিয়ে ফেলে। তা দেখে মায়া মজা পেলেও তিশা রেগে যায়। নাইম কেন বিদেশি মেয়েদের সাথে ফ্ল্যার্ট করে? নাইমের অকপট জবাব, সে বিদেশিনি বিয়ে করে বিদেশে চলে যাবে। ধনী হবে।

এদিকে তিশাকে সারপ্রাইজ দিতে আসে হবু বর জনি। তাকে দেখে তিশা অবাক হয়। একইসাথে রেগে যায়। কারণ সে জনিকে এখানে আশা করেনি। তাই একটু মিসবিহেভ করে। সে এসময়টা বন্ধুদের সাথে কাটাতে এসেছিল। জনি বুঝতে পেরে অপমানিত হয়।

কিন্তু তিশা, নাইম ও জনির প্রতেক্যের গল্পটা প্রত্যেকের কাছে থাকে অজানা। সেই গল্পই জানা যাবে এবার নতুন টেলিছবি ‘সবার একটা গল্প থাকে’-তে।

আজ শনিবার (২০ জুলাই) রাত ৮টা ৩০ মিনিটে মাছরাঙা টিভিতে প্রচার হবে টেলিফিল্মটি। এটি রচনা করেছেন শফিকুর রহমান শান্তনু। পরিচালনা করেছেন দীপু হাজরা।

এখানে জুটি বেঁধেছেন সজল ও অপর্ণা। আরও দেখা যাবে কল্যান কোরাইয়া, মাহা ও একটি বিশেষ চরিত্রে অর্ষাকে।

এলএ/এমকেএইচ

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - [email protected]

আপনার মতামত লিখুন :