মোদির গ্রামেরই সবার টয়লেট নেই

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০২:৪৯ এএম, ২৭ নভেম্বর ২০১৭
মোদির গ্রামেরই সবার টয়লেট নেই

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির জন্ম গুজরাটের মেহসানা জেলার ভাদনগর গ্রামে। ঐতিহাসিকভাবে গুরুত্বপূর্ণ পর্যটন স্থান হিসেবে গড়ে তোলা হচ্ছে সেই গ্রাম। অথচ মোদির গ্রামের সবারই এখনো টয়লেট নেই।

কিন্তু মোদি প্রধানমন্ত্রী হবার পর ২০১৪ সালেই বলেছিলেন ক্লিন ইন্ডিয়া মিশনের কথা। বড় মুখ করে বলেছিলেন, ভারতে সবার বাড়িতে টয়লেট থাকতে হবে।

মোদির গ্রামের নির্মলা বেন নামের একজন নারী জানান, নির্বাচনের আগে আমাদের প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়েছিল, আমরা মাথার ওপর আমরা ছাদ আর টয়লেট পাবো; কিন্তু বাস্তবে তার কোনোটাই পাইনি। মোদির সরকার কথা রাখেনি বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

মোদির গ্রামে রয়েছে রোহিত ভাস নামে একটি পাড়া। সেখানে বাস করে দলিত সম্প্রদায়ের লোকজন। সেখানে ওয়াইফাই জোন থাকলেও দর্শণার্থীদের ব্যবহারের মতো কোনো টয়লেট নেই।

সেখানকার সববয়সীরা মাঠেই মলত্যাগ করে। দর্শণার্থীরা এসে টয়লেটের কথা জিজ্ঞেস করলে তাদেরও খোলা মাঠ দেখিয়ে দেন গ্রামের লোকজন।

লাল একটি টিনের ক্যান তুলে দেখান মণি বেন নামের এক বয়স্ক নারী। সেই ক্যানে পানি ভরেই প্রতিদিন তাকে মাঠে যেতে হয় মলত্যাগের জন্য। সেখানে পুরুষও নারীদের মলত্যাগের জন্য রয়েছে আলাদা মাঠ।

বিবিসি হিন্দির প্রতিবেদক জানান, ত্রিশ হাজার লোকের ওই পৌরসভায় পাঁচশ বাড়িতে কোনো টয়লেট নেই। পয়:নিষ্কাশনের ড্রেনগুলো সব খোলা। অনেক নালা ময়লায় বন্ধ হয়ে গেছে।

মোদির কাছে এখন তাদের একটি জিনিস চাওয়ার আছে; টয়লেট। আগামী নির্বাচনে সবচেয়ে বড় ইস্যু সেখানে টয়লেটই।

বিবিসি

কেএ/এমএস