চলন্ত বিমানে কিশোরীর সঙ্গে যৌনতা, কাঠগড়ায় ধনকুবের

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০১:৩৪ পিএম, ২২ মে ২০১৯

অটো-পাইলট মোডে রেখে চলন্ত বিমানেই ১৫ বছর বয়সী এক কিশোরীর সঙ্গে অবাধ যৌনতায় লিপ্ত হওয়ার দায়ে মার্কিন এক ধনকুবেরকে দোষী সাব্যস্ত করেছেন দেশটির একটি আদালত। দোষ স্বীকার করে নেয়ায় ৫৩ বছর বয়সী এই ধনকুবের পাঁচ বছরের কারাদণ্ডের মুখোমুখি হয়েছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের নিউ জার্সির বেডমিনস্টারের ৫৩ বছর বয়সী ওই ধনকুবেরের নাম স্টিফেন ব্রাডলি মেল। চলন্ত বিমানে অনৈতিক যৌন আচরণে লিপ্ত ও শিশু পর্নোগ্রাফি কাছে রাখার দায় ফেডারেল আদালতের কাছে স্বীকার করেছেন তিনি। আগামী মঙ্গলবার তার বিরুদ্ধে নিউ জার্সির আদালত রায় ঘোষণা করবেন।

কিশোরীর সঙ্গে অস্বাভাবিক যৌনতা ও পর্নোগ্রাফি রাখার দায়ে মার্কিন এই ধনকুবের পাঁচ বছরের কারাদণ্ডের সাজা পেতে পারেন।

ব্রিটিশ দৈনিক ডেইলি মেইল বলছে, তিন সন্তানের বাবা মেলের একটি ব্রোকারেজ প্রতিষ্ঠান রয়েছে। ১৫ বছরের ওই কিশোরীকে বিমান চালানো শেখানোর জন্য তার মা ধনকুবের মেলের কাছে গিয়েছিলেন। পরে মেল কিশোরীকে ব্যক্তিগত বিমানে নিয়ে যাত্রা শুরু করেন।

বিমানে ওঠার পর অটো পাইলট মোড চালু করে ওই কিশোরীর সঙ্গে যৌনতায় লিপ্ত হন তিনি। তবে রায় ঘোষণার আগে মার্কিন এই ধনকুবেরের আইনজীবী বলেছেন, মেল একজন বিনয়ী মানুষ। ২০১২ সালে বন্ধুদের সঙ্গে হেলিকপ্টার ভ্রমণে গিয়ে মারাত্মক দুর্ঘটনার কবলে পড়ার পর থেকে তিনি বিষণ্নতার মধ্যে ছিলেন।

গত বছরের জুলাইয়ে তার বিরুদ্ধে ওই কিশোরীর সঙ্গে অবৈধ যৌনতায় লিপ্ত হওয়ার অভিযোগ আনা হয়। চলতি মাসের শুরুর দিকে আদালতের কাছে দেয়া জবানবন্দিতে মার্কিন এই ধনকুবের দোষ স্বীকার করে নিয়েছেন।

মেলের ব্যক্তিগত দাতব্য সংস্থা এয়ার লাইফলাইন। যুক্তরাষ্ট্রের যে কোনো প্রান্তে বিনামূল্যে মেডিক্যাল সহায়তা পৌঁছে দেয়া ও শিশুদের বিমানে আরোহন করায় মেলের এই সংস্থা।

এসআইএস/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :