বৈরুতে বিস্ফোরণে দায়ী সন্দেহভাজন কর্মকর্তারা গৃহবন্দী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৫০ এএম, ০৬ আগস্ট ২০২০

লেবাননের রাজধানী বৈরুতে ভয়াবহ বিস্ফোরণের ঘটনায় বন্দরের গোডাউনে বিপুল পরিমাণ অ্যামোনিয়াম নাইট্রেট মজুতে অবহেলার বিষয়ে গুরুত্ব দিচ্ছেন তদন্তকারীরা। ইতোমধ্যেই এ ঘটনায় দায়ী সন্দেহভাজন বেশ কয়েকজন কর্মকর্তাকে গৃহবন্দী করার নির্দেশ দিয়েছে দেশটির সরকার।

মঙ্গলবারের এই প্রাণঘাতী বিস্ফোরণের কারণ এখনও শতভাগ নিশ্চিত না হলেও সংশ্লিষ্টদের বিশ্বাস, বন্দরের গোডাউনে প্রায় ছয় বছর ধরে মজুত রাখা বাজেয়াপ্ত ২ হাজার ৭৫০ টন অ্যামোনিয়াম নাইট্রেট থেকেই এ দুর্ঘটনা ঘটেছে। বিস্ফোরণের তাণ্ডবে বৈরুত শহরের প্রায় অর্ধেকটাই ধূলিসাৎ হয়ে গেছে। বিস্ফোরণের প্রভাব এতটাই তীব্র ছিল যে দেড়শ’ কিলোমিটার দূর থেকেও তা অনুভব করা গেছে। বিস্ফোরণের ধাক্কায় ৪ দশমিক ৫ মাত্রার ভূমিকম্পের মতো কম্পন সৃষ্টি হয়েছিল বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

লেবানিজ রাজধানীতে ভয়াবহ বিস্ফোরণটিতে এ পর্যন্ত অন্তত ১৩৫ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে, আহত হয়েছেন কমপক্ষে পাঁচ হাজার মানুষ। মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করছেন উদ্ধারকারীরা।

বৈরুতের গভর্নর মারওয়ান আবৌদ জানিয়েছেন, বিস্ফোরণের ফলে শহরটির অন্তত তিন লাখ মানুষ গৃহহীন হয়ে পড়েছে। এতে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ ১০ থেকে ১৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার হতে পারে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের দায়িত্ব তুলে দেয়া হয়েছে লেবানিজ সেনাবাহিনীর হাতে। এছাড়া, হতাহতদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে দুইদিনের রাষ্ট্রীয় শোক ঘোষণা করেছে লেবাননের মন্ত্রিসভা।

সূত্র: আল জাজিরা

কেএএ/পিআর

টাইমলাইন  

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]