মেয়েদের হাতে মোবাইল দেয়ায় ধর্ষণ বাড়ছে, বিতর্কিত মন্তব্য ভারতে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৫:৪২ পিএম, ১০ জুন ২০২১

মেয়েদের হাতে মোবাইল দিলে ধর্ষণের ঘটনা বেশি ঘটে। এজন্য তাদের কাছে মোবাইল ফোন দেয়া উচিত নয়। সম্প্রতি এমন বিতর্কিত মন্তব্য করে ব্যাপক তোপের মুখে পড়েছেন উত্তর প্রদেশের মহিলা কমিশনের এক সদস্য।

মীনা কুমারী নামে ওই নারীর মতে, মেয়েরা বিগড়ে গেলে তার পুরোপুরি দায় মায়ের।

বৃহস্পতিবার আলিগড়ে একটি অনুষ্ঠানে অংশ নিয়ে মীনা বলেন, মেয়েদের হাতে মোবাইল দেয়া উচিত নয়। কারণ ফোন পেলে তারা ঘণ্টার পর ঘণ্টা ছেলেদের সঙ্গে কথা বলবে। তারপর পালিয়ে যাবে। এর জন্যই ধর্ষণের মতো ঘটনা বেশি ঘটছে।

তার দাবি, মেয়েদের ফোন কেউ পরীক্ষা করে দেখে না। পরিবারের লোকদের এই ব্যাপারে নজরই থাকে না।

মীনা কুমারী আরও বলেন, মেয়েদের বড় হওয়ার ক্ষেত্রে মায়ের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা থাকে। যদি কোনো মেয়ে বিগড়ে যায়, তাহলে সম্পূর্ণ দায় তার মায়ের।

মহিলা কমিশনের সদস্যের এমন মন্তব্য ঘিরে ভারতজুড়ে চলছে সমালোচনার ঝড়। অবশ্য তার এ বক্তব্যের পরপরই উত্তর প্রদেশ মহিলা কমিশনের ভাইস চেয়ারপারসন অঞ্জু চৌধরী জানিয়েছেন, এটা পুরোপুরি মীনার ব্যক্তিগত মতামত। মেয়েদের কাছে মোবাইল দেয়া বন্ধ করলেই ধর্ষণ কমে যাবে বলে মনে করেন না তারা।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা

কেএএ/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]