আমলকির গুণাগুণ


প্রকাশিত: ০৮:২১ এএম, ২০ জানুয়ারি ২০১৬

প্রথমে স্বাদটা ঠিক পছন্দ না-ও হতে পারে। তবু একটুখানি চিবিয়ে পানি খান। কী? পানিকে শরবত মনে হচ্ছে, তাই তো? হ্যাঁ, এই ফলটিই আমলকি। ভিটামিন সি-তে ভরপুর আমলকিতে আছে অসংখ্য উপকারিতা। প্রতিদিন একটি অথবা দুটি আমলকি খেলে মুক্তি মিলবে অনেক অসুখ বিসুখ থেকে। শরীরে ভিটামিন সি এর ঘাটতি মেটাতে আমলকির জুড়ি নেই। ভিটামিন সি এর অভাবে যেসব রোগ হয়, যেমন- স্কার্ভি, মেয়েদের লিউকরিয়া, অর্শ প্রভৃতি ক্ষেত্রে আমলকি খেলে উপকার পাওয়া যায়।

আমলকি খেলে মুখে রুচি বাড়ে। এছাড়া পেটের পীড়া, সর্দি, কাশি ও রক্তহীনতার জন্যও খুবই উপকারী।

হার্টের রোগীরা আমলকি খেলে উপকার পাবেন। টাটকা আমলকি ঘন ঘন প্রস্রাব হওয়া বন্ধ করে, পেট পরিষ্কার করে।

বারবার বমি হলে এক কাপ পানিতে শুকনো আমলকি ভিজিয়ে ঘণ্টা দুই রেখে দিন। এরপর সেই পানিতে একটু চন্দন ও চিনি মিশিয়ে খান। তাহলে দেখবেন ম্যাজিকের মতো বমি বন্ধ হয়ে গেছে।

পিত্ত সংক্রান্ত যেকোনো রোগে সামান্য মধু মিশিয়ে আমলকি খেলে উপকার হয়।

কাঁচা বা শুকনো আমলকি বেটে একটু মাখন মিশিয়ে মাথায় লাগালে খুব তাড়াতাড়ি ঘুম আসে। কাঁচা আমলকি বেটে রস প্রতিদিন চুলে লাগিয়ে দু-তিন ঘন্টা রেখে দিতে হবে। এভাবে একমাস মাখলে চুলের গোড়া শক্ত, চুল উঠা এবং তাড়াতড়ি চুল পাকা বন্ধ হবে।

নিয়মিত কয়েক টুকরো করে আমলকি খেলে চোখের দৃষ্টিশক্তি ঠিক থাকে। আমলকি খিদে বাড়ায়, শরীর ঠান্ডা রাখে।

এইচএন/পিআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]