তাশখন্দে রাষ্ট্রপতির ব্যস্ত দিন পার

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৪৯ এএম, ১৮ জুন ২০১৯
তাসখন্দের হযরত ইমাম মসজিদে রাষ্ট্রপতি

সরকারি সফরে উজবেকিস্তান অবস্থানরত রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ গতকাল (১৭ জুন) ব্যস্ত সময় পার করেছেন। এদিন তিনি রাজধানী তাশখন্দে হাস্তি ইমাম মসজিদ, আমির তেমুর জাদুঘর ও উজবেকিস্তান টেক্সটাইল অ্যান্ড গার্মেন্ট ইন্ডাস্ট্রি অ্যাসোসিয়েশন পরিদর্শন করেছেন।

বাসস জানায়, প্রথমে রাষ্ট্রপতি হাস্তি ইমাম মসজিদ পরিদর্শনে যান। এ সময় উজবেকিস্তানের উপ-প্রধানমন্ত্রী আবদুল হাকিমভ সেখানে তাকে অভ্যর্থনা জানান ও মসজিদের বিভিন্ন ঐতিহাসিক ঘটনা সম্পর্কে অবহিত করেন। রাষ্ট্রপতি সেখানে কিছু সময় অতিবাহিত করেন। এ সময় স্ত্রী রাশীদা খানম ও রেজোয়ান আহম্মদ তৌফিক এমপি তার সঙ্গে ছিলেন। এই মসজিদে ইসলামের তৃতীয় খলিফা হযরত ওসমান(রা.) এর আমলে হাতে লেখা পবিত্র কোরআনের অংশবিশেষ সযত্নে সংরক্ষিত আছে।

president

তাসখন্দে উজটেক্স নামে একটি গার্মেন্ট কারখানা পরিদর্শন করছেন রাষ্ট্রপতি

পরে রাষ্ট্রপতি স্থানীয় সময় দুপুর ১২টা ২০ মিনিটে আমির তেমুর জাদুঘর পরিদর্শনে যান। সেখানে প্রায় এক ঘণ্টা অবস্থানকালে রাষ্ট্রপতি দেশটির ন্যাশনাল টেলিভিশন চ্যানেলের এক সাংবাদিককে সাক্ষাৎকার দেন। এ সময় তিনি উজবেকিস্তানের সঙ্গে বাংলাদেশের বিদ্যমান সম্পর্ক তুলে ধরেন এবং দেশটির ঐতিহ্যবাহী ও ঐতিহাসিক ঘটনাবলীর সুন্দর সংগ্রহ ও উপস্থাপনের প্রশংসা করেন।

presi

আমির তৈমুর জাদুঘর পরিদর্শনে রাষ্ট্রপতি

রাষ্ট্রপতি আশা প্রকাশ করেন আগামীতে দু’দেশের সম্পর্ক আরও জোরদার হবে। এর আগে রাষ্ট্রপতি জাদুঘরে পৌঁছালে তাশখন্দ জাদুঘর কর্তৃপক্ষ তাকে স্বাগত জানান।

পরে রাষ্ট্রপতি উজবেকিস্তানের জাতীয় পোশাক ও সংস্কৃতি উপস্থাপনের জন্য আমির তেমুর জাদুঘরের প্রশংসা করে দর্শনার্থী বইতে স্বাক্ষর করেন।

jagonews

যাদুঘর পরিদর্শনকালে রাষ্ট্রপতির স্ত্রী রাশীদা খানম, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন, উজবেকিস্তানে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মসয়ুদ মান্নান, রেজোয়ান আহম্মদ তৌফিক এমপি, রাষ্ট্রপতির সচিব সম্পদ বড়ুয়া এবং দ্বিপক্ষীয় ও কনস্যুলার সচিব কামরুল আহসানও সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

jagonews

এর আগে রাষ্ট্রপতি তাজিকিস্তানে পঞ্চম কনফারেন্স অন ইন্টারন্যাশনাল অ্যান্ড কনফিডেন্স মেজার ইন এশিয়াতে (সিআইসিএ) যোগদান শেষে রোববার (১৬ জুন) উজবেকিস্তানে পৌঁছান। সূত্র : বাসস

এমএমজেড/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :