চার ব্যাংক থেকে সাহেদ সংশ্লিষ্ট নথি তলব করেছে দুদক

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১২:২৯ এএম, ১৬ জুলাই ২০২০

রিজেন্ট গ্রুপভুক্ত আট প্রতিষ্ঠান ও সাহেদের নিজের নামের ব্যাংক হিসাবের নথি তলব করে আরও চার ব্যাংককে চিঠি পাঠিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। চিঠিতে আগামী সোমবারের (২০ জুলাই) মধ্যে রাজধানীর সেগুনবাগিচায় দুদকের প্রধান কার্যালয়ে অনুসন্ধান টিম প্রধানের কাছে নথিপত্রগুলো পাঠাতে বলা হয়েছে।

ব্যাংক এশিয়ার রাজধানীর কাজী নজরুল ইসলাম অ্যাভিনিউয়ের করপোরেট শাখা, ডাচ-বাংলা ব্যাংকের মতিঝিল প্রধান কার্যালয়, গুলশান-১-এ এনআরবি ব্যাংকের প্রধান কার্যালয় ও পদ্মা ব্যাংকের গুলশান করপোরেট শাখায় ওই চিঠি দেয়া হয়েছে।

বুধবার (১৫ জুলাই) দুদক উপ-পরিচালক ও অনুসন্ধান টিমের প্রধান মো. আবু বকর সিদ্দিকের স্বাক্ষরিত চিঠিগুলো চার ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) বরাবর পাঠানো হয়েছে।

দুদক সূত্রে জানা যায়, ওইসব ব্যাংক থেকে সাহেদ ও তার প্রতিষ্ঠানের হিসাব খোলার আবেদনপত্র (সংযুক্তিসহ), কোম্পানির মেমোরেন্ডাম অব অ্যাসোসিয়েশন অ্যান্ড আর্টিক্যালস অব অ্যাসোসিয়েশন, ট্রেড লাইসেন্স, হিসাব বিবরণী, ঋণ গ্রহণের আবেদন, মঞ্জুরিপত্র, বন্ধকি দলিল, বন্ধকি সম্পত্তির টাইটেল ডিড, মামলার আর্জি ও আনুষঙ্গিক অন্যান্য রেকর্ডপত্র/তথ্যাদির সত্যায়িত কপি চাওয়া হয়েছে। অভিযোগের সুষ্ঠু অনুসন্ধানের স্বার্থে ওইসব তথ্য চাওয়া হয়।

এর আগে গত মঙ্গলবার সাহেদ ও তার প্রতিষ্ঠানের হিসাবের নথিপত্র চেয়ে ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংকের উত্তরা শাখার ম্যানেজার, দ্য ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংকের বিমানবন্দর শাখা ম্যানেজারের কাছে চিঠি পাঠানো হয়। এছাড়া আরও সাত প্রতিষ্ঠানের নথি তলব করে দুদক।

ইতোমধ্যে দুদক সাহেদের মালিকানাধীন রিজেন্ট গ্রুপের আটটি সহযোগী প্রতিষ্ঠানের সন্ধান পেয়েছে। এগুলো হলো-রিজেন্ট হাসপাতাল লিমিটেড, রিজেন্ট কেসিএস লিমিটেড, মুনলাইট রিসোর্ট, ফোর স্টার ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেড, মুনলাইট বিল্ডার্স, রিজেন্ট ইউনিভার্সিটি অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি, ঢাকা সেন্ট্রাল কলেজ, দি ডেইলি অন্য দিগন্ত ও কর্মমুখী কর্মসংস্থান সোসাইটি।

এফএইচ/এসআর

টাইমলাইন  

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]