পুলিশের গাড়ি ভাঙচুরের পুরোনো ভিডিও বিশেষ কায়দায় লাইভ, গ্রেফতার ১

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০১:৪৬ এএম, ০৯ এপ্রিল ২০২১
ফাইল ছবি

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের একটি পেজ থেকে সোমবার (৫ এপ্রিল) লকডাউনে পুলিশের গাড়ি ভাঙচুরের একটি ভিডিও প্রচার হয়। ভিডিও লিংকে ক্লিক করে দেখা যায়, অজ্ঞাত কয়েকজন ব্যক্তি ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) উত্তরা বিভাগের দক্ষিণখান থানা এলাকায় একটি পিকআপ-ভ্যান ভাঙচুর করছে।

পূর্বে ধারণ করা ওই ভিডিও সেদিন বিশেষ প্রক্রিয়ায় লাইভ হিসেবে প্রচার করে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিসহ আইনশৃঙ্খলার অবনতি ঘটানোর অভিযোগে একজনকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) গোয়েন্দা সাইবার অ্যান্ড স্পেশাল ক্রাইম বিভাগ।

গ্রেফতার ব্যক্তির নাম মো. আজিজুল হক ওরফে আজিজুল মোল্লা (৩২)। এসময় তার কাছ থেকে দুটি মোবাইল ফোন উদ্ধার করে জব্দ করা হয়।

বৃহস্পতিবার (৮ এপ্রিল) দিবাগত রাতে ডিএমপির গোয়েন্দা সাইবার অ্যান্ড স্পেশাল ক্রাইম বিভাগের এডিসি আশরাফউল্লাহ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, একটি স্বার্থান্বেষী মহল দেশের আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি অবনতি ঘটানোর জন্য রেডিওগুলিস্তান.কম পেজ এবং আজিজুল হক নামে ফেসবুক পেজ থেকে পূর্বের রেকর্ডকৃত ভিডিও বিশেষ প্রক্রিয়ায় লাইভ হিসেবে প্রচার করে। যার পরিপ্রেক্ষিতে রমনা মডেল থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের করা হয়।

তিনি বলেন, মামলা দায়েরের পর আধুনিক তথ্য-প্রযুক্তির সহায়তায় এর সঙ্গে জড়িত প্রকৃত অভিযুক্তকে শনাক্ত করা হয়। বৃহস্পতিবার কামরাঙ্গীর চর থানার আলীনগর এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

তিনি আরও জানান, গ্রেফতার আজিজুলকে রমনা মডেল থানার দায়ের করা ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় রিমান্ড চেয়ে আদালতে নেয়া হলে তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন বিচারক।

উল্লেখ্য, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের একটি পেজ থেকে সোমবার লকডাউনে পুলিশের গাড়ি ভাঙচুরের একটি ভিডিও প্রচার করা হয়। সেই ভিডিওতে দেখা যায়, অজ্ঞাত কয়েকজন ব্যক্তি ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) উত্তরা বিভাগের দক্ষিণখান থানা এলাকায় একটি পিকআপ-ভ্যান ভাঙচুর করছে। তবে পুলিশ জানিয়েছে, পুরোনো একটি ভিডিও নতুন শিরোনাম দিয়ে মিথ্যাচার করা হয়েছে সেখানে। এই অপচেষ্টাকে প্রতিহত করতে সাইবার ক্রাইম টিম শিগগিরই আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে যাচ্ছে।

পুলিশ জানায়, গত বছরের ১৩ মে দক্ষিণখান কোটবাড়ি এলাকায় অবৈধ চলাচল বন্ধ করতে পুলিশ কয়েকটি ইজিবাইক আটক করে থানায় নিয়ে যায়। পরবর্তীতে স্থানীয় এক নারী বিষয়টি নিয়ে পুলিশের সঙ্গে বাদানুবাদে লিপ্ত হন এবং গালিগালাজ করেন। একপর্যায়ে তার সহযোগীরা এসে পুলিশের একটি গাড়ি ভাঙচুর ও আক্রমণ করে। এ ঘটনায় বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্য আহতও হয়েছিলেন।

তখন পুলিশ বাদী হয়ে ওই নারীসহ ৩৫ জনের বিরুদ্ধে দক্ষিণখান থানায় একটি মামালা করে (মামলা নম্বর-০৫)। মামলার পর অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নিয়েছিল পুলিশ।

টিটি/এমআরআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]