সাঈদ খোকনের বক্তব্যের বিষয়ে কথা বলতে ‘নিরুৎসুক’ মেয়র তাপস

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৫৩ পিএম, ২৯ জুন ২০২১
ফাইল ছবি

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) সাবেক মেয়র সাঈদ খোকন এবং তার পরিবারের সদস্যদের আটটি ব্যাংক হিসাব ফ্রিজ করার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। এ বিষয়ে গণমাধ্যমকে আনুষ্ঠানিক প্রতিক্রিয়া জানাতে মঙ্গলবার (২৯ জুন) জাতীয় প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেছেন তিনি।

তিনি অভিযোগ করেন, ডিএসসিসির বর্তমান মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপসের প্ররোচনায় দুদক ওই আবেদন করেছে।

সাঈদ খোকনের এ বক্তব্যের বিষয়ে বর্তমান মেয়রের বক্তব্য জানতে চান সাংবাদিকরা।

পরে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ডিএসসিসি মেয়রের বরাত দিয়ে সংস্থাটির জনসংযোগ কর্মকর্তা আবু নাছের বলেন, ‘বিষয়টি মহামান্য আদালত ও দুর্নীতি দমন কমিশন সংশ্লিষ্ট। বিচারাধীন কোনো বিষয়ে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের বর্তমান মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস কোনো ধরনের বক্তব্য বা প্রতিউত্তর দিতে নিরুৎসুক।’

মঙ্গলবারের সংবাদ সম্মেলনে সাঈদ খোকন বলেন, ‘নিজের ব্যর্থতা ঢাকতে সীমাহীন বিদ্বেষ ও হয়রানিমূলক আচরণ করছেন তাপস। দুদকের এই কর্মকাণ্ড তাপসের প্ররোচনায় সংঘটিত হয়েছে। আমি আইনি মোকাবিলা করব এবং সাথে সাথে ঢাকাবাসীকে নিয়ে প্রয়োজনে আরেকবার সংগ্রাম করব।’

মেয়র তাপসকে উদ্দেশ করে সাঈদ খোকন বলেন, ‘তাপস কতটুকু ভোটে নির্বাচিত হয়েছেন এই শহরের মানুষ জানে। কত পার্সেন্ট ভোট পেয়েছেন তাও মানুষ জানে। যাই হোক ক্ষমতায় আছেন, মানুষের কাজ করেন। ব্যর্থতা ঢাকার জন্য আরেকজনের মাথায় কালিমা লেপন করে দেবেন ঢাকাবাসী এটা মেনে নেবে না।’

দুদকের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) সাবেক মেয়র সাঈদ খোকনের তিনটি প্রতিষ্ঠানের ব্যাংক হিসাব ফ্রিজের (অবরুদ্ধ) নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। এ ছাড়া তার স্ত্রী ফারহানা আলম, বোন শাহানা হানিফ ও মায়ের ব্যাংক হিসাব ফ্রিজের (অবরুদ্ধ) নির্দেশ দেন আদালত।

এমএমএ/এসএস/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]