আয়াতকে হত্যার পর ৬ টুকরা: গ্রেফতার আবির দুইদিনের রিমান্ডে

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক চট্টগ্রাম
প্রকাশিত: ০৮:৪৫ পিএম, ২৬ নভেম্বর ২০২২

চট্টগ্রামের চাঞ্চল্যকর শিশু আয়াতকে হত্যা করে মরদেহ ছয় টুকরা করে সাগরে ভাসিয়ে দেওয়ার ঘটনায় গ্রেফতার আবির আলীর দুইদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

শনিবার (২৬ নভেম্বর) বিকেলে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মো. সাদ্দাম হোসেন এ আদেশ দেন। আদালতের আদেশের পরপরই আবির আলীকে হেফাজতে নিয়েছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)।

পিবিআই চট্টগ্রাম মেট্রো অঞ্চলের ইন্সপেক্টর ইলিয়াস খান বলেন, শিশু আয়াতকে অপহরণের পর হত্যার ঘটনায় আবির আলীকে ইপিজেড থানায় দায়ের হওয়া মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে হাজির করে ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হয়। আদালত শুনানি শেষে দুইদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন।

এর আগে বৃহস্পতিবার (২৪ নভেম্বর) রাতে ইপিজেড থানাধীন আকমল আলী সড়ক থেকে আবির আলীকে গ্রেফতার করে পিবিআই।

আরও পড়ুন: শিশু আয়াতকে হত্যার পর ৬ টুকরা, যুবক গ্রেফতার

জানা যায়, চট্টগ্রাম মহানগরীর ইপিজেড থানাধীন বন্দরটিলা এলাকায় গত ১৫ নভেম্বর নিখোঁজ হয় ৫ বছর বয়সী আলিনা ইসলাম আয়াত। ওইদিন খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে ইপিজেড থানায় নিখোঁজ ডায়েরি করেন তার বাবা সোহেল রানা। এ ঘটনায় থানা পুলিশ কোনো ক্লু উদঘাটন করতে না পারলেও ২৪ নভেম্বর রাত ১১টার দিকে ইপিজেড থানাধীন আকমল আলী সড়ক থেকে আবির আলীকে গ্রেফতার করে পিবিআই।

আটকের পর পিবিআইয়ের জিজ্ঞাসাবাদে শিশু আয়াতকে মুক্তিপণ আদায়ের উদ্দেশ্যে অপহরণের কথা স্বীকার করেন আবির আলী। পরে শ্বাসরোধ করে হত্যা এবং ধারালো বটি ও অ্যান্টিকাটার দিয়ে মরদেহ ছয় টুকরা করে নালা ও সাগরে ফেলে দেওয়ার তথ্য দেন পিবিআইকে।

পিবিআই এরই মধ্যে হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত বটি ও অ্যান্টিকাটার উদ্ধার করেছে। এ ঘটনায় শুক্রবার দিবাগত রাতে অজ্ঞাতনামাদের আসামি করে ইপিজেড থানায় একটি হত্যা মামলা রেকর্ড হয়।

ইকবাল হোসেন/ইএ/জেআইএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।