তথ্য প্রতিমন্ত্রীর সমালোচনায় সাঈদ খোকন

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৭:৩৪ পিএম, ১৭ অক্টোবর ২০২১

তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানের সাম্প্রতিক একটি বক্তব্যের কড়া সমালোচনা করেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) সাবেক মেয়র ও আওয়ামী লীগ নেতা মোহাম্মদ সাঈদ খোকন।

তিনি বলেছেন, সম্প্রতি দেশের একজন প্রতিমন্ত্রীকে (ডা. মুরাদ হাসান) বলতে দেখলাম- ‘আমি রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম বাদ দিয়ে দেবো।’ এটা কি আপনার দলীয় ফোরামে আলোচনা করেছেন? আপনি একজন মন্ত্রী, এটা কি মন্ত্রিপরিষদে আলোচনা করেছেন? আপনি একজন সংসদ সদস্য হিসেবে স্থায়ী কমিটিতে আলোচনা করেছেন? কোনো কোরামেই করেননি। বলে দিলেন আমি রাষ্ট্র ব্যবস্থা ইসলাম মানি না।।

শনিবার (১৬ অক্টোবর) ঢাকার আশুলিয়ার বাইপাইলে ইন্টারন্যাশনাল ইসলামিক ইউনিভার্সিটি অব সাইন্স অ্যান্ড টেকনোলজির ক্যাম্পাসে বাংলাদেশ জমঈয়তে আহলে হাদীসের দশম কেন্দ্রীয় কাউন্সিল অধিবেশন সাঈদ খোকন এসব কথা বলেন। রোববার (১৭ অক্টোবর) বিকেলে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সাঈদ খোকনের জনসংযোগ কর্মকর্তা হাবিবুল হক সুমন এ কথা জানান।

প্রতিমন্ত্রীর উদ্দেশে সাঈদ খোকন বলেন, মনগড়া কথা বলেন? ইসলামবিরোধী কথা বলেন, দলের অনুমতি নেননি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর অনুমতি নেননি। এ দায়িত্ব কি দলের? এর দায়ভার কি সরকার নেবে? ইসলামের বিরুদ্ধে কথা বললে এ দেশের মুসলমান তা সহ্য করবে না। আর তাই এদের আমি বলি নামে মুসলমান। কিন্তু ইসলামবিরোধী মানুষ।

কাউন্সিল অধিবেশনে সংসদ সদস্য একেএম রহমতুল্লাহ বলেন, যাদের ওপর নেতৃত্ব আসবে, আমরা তাদের পূর্ণ সহযোগিতা করবো।

আলোচনার পর জমঈয়তে আহলে হাদীসের আগামী সেশনের কমিটি গঠন করা হয়। এতে আব্দুল্লাহ ফারুক সভাপতি ও মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ খান মাদানীকে জেনারেল সেক্রেটারি হিসেবে ঘোষণা করা হয়।

সংগঠনের কেন্দ্রীয় আহ্বায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা (সাবেক আইজিপি) মুহাম্মদ রুহুল আমীনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে নির্বাচন কমিশনের সদস্য দেওয়ান আব্দুর রহীম ও সাবেক সচিব এম এ সবুর প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এমএমএ/জেডএইচ/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]