গেইল-রাসেলের জন্য যে পরিকল্পনা ওয়ালশের

আরিফুর রহমান বাবু
আরিফুর রহমান বাবু আরিফুর রহমান বাবু , বিশেষ সংবাদদাতা টনটন থেকে
প্রকাশিত: ১১:১৭ পিএম, ১৪ জুন ২০১৯

মাথার ওপরে বৃষ্টি, ম্যাচের পর ম্যাচ বিঘ্নিত হচ্ছে। এর মধ্যে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচটি বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত হওয়ায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বাংলাদেশ দল। ৭২ ঘন্টা পর ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে অতি গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ।

যেখানে হারলে সেমিফাইনালের পথ সংকুচিত হয়ে যাবে। তবে জিতলে আবার সেরা চারে খেলার সম্ভাবনা জাগ্রুক হবে। সব মিলে মাশরাফি বাহিনীর অস্তিত্বের লড়াই ১৭ জুন। হারলে সেমিতে খেলার স্বপ্ন ভেঙ্গে খান খান হবার সম্ভাবনা অনেক- এমন কঠিন সমীকরণ সামনে রেখে সোমবার ক্যারিবীয়দের মুখোমুখি হতে হবে।

আজ (শুক্রবার) ইংল্যান্ডের কাছে পাত্তা না পেলেও দল হিসেবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ দুর্দান্ত, প্রতিপক্ষ হিসেবে অনেক শক্তিশালী ও কঠিন। ক্রিস গেইল, শাই হোপ, শিমরন হেটমেয়ারের মত তিনজন সুপার উইলোবাজ; যাদের আছে যে কোন দলের ফ্রন্টলাইন বোলিংকে দুমড়েমুচড়ে দেয়ার ক্ষমতা। সঙ্গে আন্দ্রে রাসেলের মত ভয়ঙ্কর আর বিধ্বংসী অলরাউন্ডার- যিনি একাই যে কোন দলকে হারাতে ওস্তাদ। তার একার নৈপুণ্যে যেকোন বিশ্বমানের দলও কুপোকাৎ হতে পারে। সেই সাথে ওশানে থমাস, শেলডন কটরেল এবং কেমার রোচের মত তিনজন অতি উঁচুমানের ফাস্ট বোলারের দল ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

তার ওপর খেলা হবে টনটনে। যেটা এবারের বিশ্বকাপের সবচেয়ে ছোট আউটফিল্ড। এমন মাঠে ভয়ংকর ক্যারিবীয় ব্যাটসম্যানদের কিভাবে সামলাবেন বাংলাদেশের বোলাররা? পেসারদের ভূমিকা কী হবে? তাদের গুরু কোর্টনি ওয়ালশ কি ভাবছেন সেই ম্যাচ নিয়ে? নিশ্চয়ই জানতে ইচ্ছে করছে খুব।

তাহলে শুনুন, আজ দুপুরে টনটনের সমারসেট কাউন্টি ক্লাবের ইনডোরে বাংলাদেশের প্রচার মাধ্যমের সামনে এসে অনেক কথার ভিড়ে প্রতিপক্ষ ওয়েস্ট ইন্ডিজকে কিভাবে মূল্যায়ন করতে হবে সে ব্যাখ্যাও দিয়ে দিয়েছেন।

নিজ দলের ক্রিকেটারদের প্রতি ওয়ালশের প্রথম পরামর্শ হলো, ‘প্রতিপক্ষ হিসেবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ কেমন? তাদের দলে কারা কারা আছে? দলটির ব্যাটিং-বোলিং কেমন, এসব নিয়ে মাথা ঘামানোর কোন দরকার নেই। আমার কথা হলো, আমরা ম্যাচের তাৎপর্য্য ও গুরুত্ব নিয়ে ভাববো।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা কোন ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাথে খেলেছি, কে কে বাংলাদেশে এসেছিলেন আর কে বা কারা আমাদের সাথে ক্যারিবীয় দ্বীপপুঞ্জে খেলেছেন বা খেলেননি- এসব নিয়ে মাথা ঘামালে চলবে না। এখন ওয়েস্ট ইন্ডিজ পুরো শক্তির দল নিয়েই মাঠে নামছে। আমরাও তাদের সাথে ধারাবাহিকভাবে ভাল খেলছি। তাই স্বস্তির বা আত্মতৃপ্তির ঢেকুর তোলার কিছুই নেই।’

ওয়েস্ট ইন্ডিজের সঙ্গে খেলা মানেই ক্রিস গেইল আর আন্দ্রে রাসেলের মত একজোড় ভয়ঙ্কর পারফরমাররের সামনে পড়া। তাদের নিয়ে কোন বিশেষ পরিকল্পনা?

এমন প্রশ্নের জবাবে ওয়ালশ বলেন, ‘আমরা গেইল ও আন্দ্রে রাসেলের খেলা দেখছি। তাদের নিয়ে কিছু ধারণাও পোষণ করছি। কিছু লক্ষ্য ও কৌশলও এঁটেছি। সন্দেহ নেই গেইল আর আন্দ্রে রাসেল দুজনই খুব বিপজ্জনক পারফরমার। তাদের আটকে রাখার চেষ্টা অবশ্যই থাকবে। আমরা কায়মনে চাইবো যাতে তারা ভয়ঙ্কর হয়ে উঠতে না পারে। তাদের যতটা সম্ভব জলদি সাজঘরে ফিরিয়ে দিতে পারলে আমাদের ম্যাচে নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠায় কিছুটা সাহায্য করবে।’

অবশ্য শুধু গেইল আরে আন্দ্রে রাসেলই নয়। বাংলাদেশের ফাস্ট বোলিং কোচ মনে করেন, ওয়েস্ট ইন্ডিজ পুরো দলও কম না। তাই তার কথা, ‘আমাদের ওয়েস্ট ইন্ডিজ পুরো দল নিয়েই চিন্তা করতে হবে। কারণ দলটিতে গেইল আর আন্দ্রে রাসেল ছাড়া আরও ভাল পারফরমার আছেন।’

এআরবি/এসএএস

আপনার মতামত লিখুন :