স্ত্রীর সঙ্গে পরকীয়া, বাড়িতে ঢুকে মেম্বারকে খুন করলেন কৃষক

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক বগুড়া
প্রকাশিত: ০৮:৩৫ পিএম, ১১ জুলাই ২০২০

বগুড়ার ধুনট উপজেলায় ঘরে ঘুমিয়ে থাকা অবস্থায় আব্দুল খালেক (৫৫) নামে এক ইউপি সদস্যকে শাবল দিয়ে মাথায় আঘাত করে হত্যা করা হয়েছে। নিহত আব্দুল খালেক উপজেলার গোপালনগর ইউনিয়ন পরিষদের এক নম্বর ওয়ার্ডের সাবেক সদস্য। তিনি চকমেহেদী গ্রামের কেসমত আলীর ছেলে।

শনিবার (১১ জুলাই) বিকেলে ইউপি সদস্যের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় অভিযান চালিয়ে রফিকুল ইসলাম (৪২) নামে এক কৃষককে আটক করেছে পুলিশ। আটক রফিকুল ইসলাম একই গ্রামের আব্দুল জলিলের ছেলে।

জানা গেছে, আব্দুল খালেক দুপুরের খাবার খেয়ে নিজের ঘরে ঘুমিয়ে পড়েন। এ সময় ঘরের জানালা খোলা ছিল। এ সুযোগে প্রতিবেশী রফিকুল ইসলাম জানালা দিয়ে বিছানায় ঘুমানো আব্দুল খালেকের মাথায় শাবল দিয়ে কয়েকটি আঘাত করেন। পরে তাকে উদ্ধার করে ধুনট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শনিবার বিকেল ৫টার দিকে আব্দুল খালেক মারা যান।

স্থানীয়রা জানায়, রফিকুল ইসলামের স্ত্রীর সঙ্গে আব্দুল খালেকের দীর্ঘদিন ধরে পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক ছিল। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়ভাবে কয়েক দফা বৈঠক করে উভয়পক্ষের মধ্যে সমঝোতা করা হয়েছে। কিন্তু তারপরও কৃষক রফিকুলের মনের ক্ষোভ শেষ হয়নি। এ ঘটনার জের ধরে রফিকুল ইসলাম ক্ষুব্ধ হয়ে আব্দুল খালেককে খুন করেছেন।

ধুনট থানা পুলিশের ওসি কৃপা সিন্ধু বালা বলেন, এই খুনের নেপথ্যে নারীঘটিত বিষয় রয়েছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে রফিকুল ইসলাম নামে এক কৃষককে আটক করা হয়েছে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদে প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে।

এএম/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]