গাজীপুরে ছিনতাইকালে পুলিশ সদস্য গ্রেফতার

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি গাজীপুর
প্রকাশিত: ০৯:৪০ পিএম, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০
প্রতীকী ছবি

গাজীপুরে ছিনতাইয়ের অভিযোগে পুলিশের কনস্টেবলসহ দুইজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তাদের বিরুদ্ধে দ্রুত বিচার আইনে জিএমপির বাসন থানায় মামলা করা হয়েছে। শনিবার তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- টাঙ্গাইলের গোপালপুর থানার উড়িয়াবাড়ি এলাকার আনসার মন্ডলের ছেলে আমিনুল ইসলাম (২৫) এবং জামালপুর সদরের ভাটিগজারিয়া আকন্দবাড়ি এলাকার মজিবুর রহমানের ছেলে ইমরুল হাসান (২৬)।

এর মধ্যে ইমরুল হাসান গাজীপুর মহানগর পুলিশের অধীন কাশিমপুর কারা কমপ্লেক্স পুলিশ ক্যাম্পের কনস্টেবল বলে নিশ্চিত করেছেন ওই ক্যাম্পের দায়িত্ব ইনচার্জ উপপরিদর্শক (এসআই) শরিফুল ইসলাম।

মামলার বরাত দিয়ে জিএমপির বাসন থানা পুলিশের এসআই মোশারফ হোসেন বলেন, শুক্রবার দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে দুই বন্ধুসহ রাজমিস্ত্রির শ্রমিক রেজাউল ইসলাম চান্দনা চৌরাস্তা থেকে হেঁটে কোনাবাড়ীর পল্লীবিদ্যুৎ এলাকায় যাচ্ছিলেন। পথে রাত ৩টার দিকে তারা ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের বাইমাইল এলাকায় পৌঁছালে আমিনুল ও ইমরুল ওই তিনজনের পথরোধ করেন। আমিনুল নিজেকে ডিবি পুলিশ পরিচয় দিয়ে ভয়ভীতি দেখিয়ে তাদের কাছ থেকে টাকা ও মোবাইল ফোন কেড়ে নিতে চান।

রেজাউল দিতে অস্বীকার করলে তাদের একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশায় উঠিয়ে রাত সাড়ে ৩টার দিকে বাসন থানাধীন আউটপাড়া এলাকায় নিয়ে আসেন। সেখানে রেজাউলের কাছ থেকে মোবাইল ও দুই হাজার টাকা ছিনিয়ে নেন ওই দুইজন। এ সময় রেজাউল ও তার সঙ্গীরা তাদের থানায় নিয়ে যেতে বললে আমিনুল থানায় নিয়ে যেতে অস্বীকৃতি জানান। ছিনতাকারী বুঝতে পেরে রেজাউল ও তার সঙ্গীরা চিৎকার শুরু করলে আমিনুল ও ইমরুল পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন। এ সময় এলাকাবাসীর সহায়তায় তাদের আটক করা হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে দুজনকে পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়। এ সময় আমিনুলের কাছ থেকে ছিনতাই হওয়া টাকা ও মোবাইল উদ্ধার করে পুলিশ।

বাসন থানা পুলিশের ওসি মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, ত্রাস সৃষ্টি করে ছিনতাইয়ের অভিযোগে রেজাউল ইসলাম বাদী হয়ে আটক দুজনের বিরুদ্ধে দ্রুত বিচার আইনে থানায় মামলা করেছেন। গ্রেফতারকৃতদের কারাগারে পাঠানো হবে।

আমিনুল ইসলাম/এএম/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]