কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে বেকারদের পাশে পিকেএসএফ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:৫৮ এএম, ৩০ ডিসেম্বর ২০২১
ছবি: সংগৃহীত

প্রশিক্ষণ শেষ না করতেই চাকরিপ্রত্যাশীদের কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে সহায়তাকারী প্রতিষ্ঠান পল্লী কর্ম-সহায়ক ফাউন্ডেশনের (পিকেএসএফ) সহযোগিতায় দেশের স্বনামধন্য আইটি প্রতিষ্ঠানে চাকরির সুযোগ পেলেন ১০ জন।

চাকরিপ্রার্থীদের কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে গত ১২ অক্টোবর প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শুরু করে পিকেএসএফ। যা শুক্রবার (৩১ ডিসেম্বর) শেষ হবে। কিন্তু প্রশিক্ষণ শেষ হওয়ার আগেই বুধবার (২৯ ডিসেম্বর) চাহিদা অনুযায়ী চাকরির সুযোগ পেলেন ১০ শিক্ষার্থীরা।

ঘটনাটি ঘটেছে স্কিলস ফর এমপ্লয়মেন্ট ইনভেস্টমেন্ট প্রোগ্রাম (এসইআইপি) প্রকল্পে। পিকেএসএফ সহযোগিতায় দেশের সুপ্রতিষ্ঠিত আইটি ট্রেনিং ও ডেভলপমেন্ট কোম্পানি ইউওয়াই সিস্টেমস লিমিটেডের মহাখালী ওয়ারল্যাস গেট কার্যালয়ে আয়োজিত এক চাকরি মেলায় এ সুযোগ পান প্রশিক্ষণার্থীরা। এতে দেশের বিখ্যাত ১০টি আইটি কোম্পানি চাহিদা অনুযায়ী জনবল নিয়োগ দেয়।

সূত্রমতে, তিন মাস মেয়াদি ফ্রি আবাসিক সুবিধাসহ (থাকা, খাওয়া) প্রশিক্ষণের মাধ্যমে চাকরি মেলায় আইটি ক্যাটাগরিতে (গ্রাফিক্স ডিজাইন, আইটি ফ্রিল্যান্সিং) ৫০ জন শিক্ষার্থীকে প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়। প্রশিক্ষণ শেষ হতে আরও একদিন বাকি থাকলেও প্রকল্পের নির্দেশনা মোতাবেক ইউওয়াই সিস্টেম লিমিটেড এদিন দেশের স্বনামধন্য আইটি প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিদের উপস্থিতিতে একটি কর্মসংস্থান বিষয়ক মতবিনিময় সভা আয়োজন করে।

অনুষ্ঠানের প্রধান আলোচক ছিলেন পিকেএসএফের উপ-ব্যবস্থাপক (কার্যক্রম) ও এসইআইপির প্রোগ্রাম অফিসার গোলাম জিলানী এবং সভাপতিত্ব করেন ইউওয়াই সিস্টেমের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শাহাদাত হোসাইন মজুমদার।

প্রধান অতিথি ছিলেন ফেডারেশন অব বাংলাদেশ হিউম্যান রিসোর্স অর্গানাইজেশন (এফবিএইচআরও) সংগঠনের আহ্বায়ক ও সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ড. মো. শাহজাহান। বিশেষ অতিথি ছিলেন সাংবাদিক মাইনুল হাসান সোহেল। এছাড়া অতিথি হিসেবে দেশের স্বনামধন্য আইটি কোম্পানির নিয়োগকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

পিকেএসএফের উপ-ব্যবস্থাপক গোলাম জিলানী বলেন, কর্মসংস্থান বিষয়ক এ মতবিনিময় সভায় আয়োজনের মূল লক্ষ্য প্রশিক্ষণার্থীদের চাকরির বাজারে নিজেদের প্রমাণ করার সুযোগ এবং প্রশিক্ষণ শেষে কীভাবে নিজেদের প্রমাণ করা যায় তার দিকনির্দেশনা দেওয়া।

অনুষ্ঠানে প্রশিক্ষণার্থী ও জনবল নিয়োগকারী প্রতিষ্ঠানের মধ্যে সরাসরি ভাইভার মাধ্যমে যোগ্যতার ভিত্তিতে চাকরির সুযোগ পান প্রশিক্ষণার্থীরা। তাৎক্ষণিক চাহিদা অনুযায়ী চাকরি মিলে ১০ জন প্রশিক্ষণার্থীর।

এমওএস/এমএএইচ/এএসএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।