ভোট পেছাতে বিজেপির পথেই তৃণমূল!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪:৪৫ এএম, ১৫ জানুয়ারি ২০২২

করোনাভাইরাসের ঊর্ধ্বমুখী সংক্রমণের কারণে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের বিধাননগর, আসানসোল, শিলিগুড়ি, চন্দননগরের ভোট কমপক্ষে চার সপ্তাহ পিছিয়ে দেওয়ার দাবি জানিয়েছে বিজেপি। শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) করোনা পরিস্থিতির কথা উল্লেখ করে এ দাবি জানায় কেন্দ্রশাসিত ক্ষমতাসীন এ দলটি। এখন শোনা যাচ্ছে, তৃণমূল কংগ্রেস একই পথে হাঁটবে। ভোট পেছানোর দাবি আনতে পারে মমতা ব্যানার্জির শিবিরও।

শুক্রবার এ নিয়ে কয়েক দফায় আলোচনা হয়েছে তৃণমূল নেতাদের মধ্যে। তবে এখনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি। সেটা হলেই কমিশনকে লিখিতভাবে জানাতে পারবে তৃণমূল।

এদিকে একইদিন কলকাতা হাইকোর্ট রাজ্যের কোভিড পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে বর্তমান আবহে ভোট চার থেকে ছ’সপ্তাহ পেছনো যায় কি না, তা বিবেচনা করে দেখতে কমিশনকে পরামর্শ দিয়েছে।
প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তবের ডিভিশন বেঞ্চ জানিয়েছে, করোনা পরিস্থিতিতে ভোট সম্ভব কি না, তা ভাবনাচিন্তা করুক কমিশন। ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে কমিশনকে সিদ্ধান্ত জানানোর নির্দেশ দিয়েছে উচ্চ আদালত।

বর্তমান তফসিল অনুযায়ী, ঠিক এক সপ্তাহ পরেই চার পৌরসভায় ভোট। ফলে ধারণা করা হচ্ছে, নির্বাচন কমিশন শনিবারই নির্বাচন পিছিয়ে নতুন তারিখ ঘোষণা দিতে পারে।

তৃ‌ণমূল সূত্রে খবর, শাসকদলও দু’সপ্তাহ ভোট পিছিয়ে দে‌ওয়ার পক্ষে মত দিতে পারে। সেটা হলে ১২ ফেব্রুয়ারি নাগাদ হতে পারে নির্বাচনের পরিবর্তিত দিন।

তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় সম্প্রতি বলেন, বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে মাস দুয়েক কোনো নির্বাচন দেওয়া ঠিক হবে না।

এমকেআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]