নিয়োগ পরীক্ষায় অনিয়ম-দুর্নীতি তদন্তে জোর দিচ্ছে দুদক

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১০:০২ পিএম, ২০ জানুয়ারি ২০২২
বক্তব্য রাখছেন দুদক সচিব মো. মাহবুব হোসেন

সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের নিয়োগ পরীক্ষায় অনিয়ম রোধে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) অগ্রাধিকার ভিত্তিতে কাজ করবে বলে জানিয়েছেন দুদক সচিব মো. মাহবুব হোসেন।

বৃহস্পতিবার (২০ জানুয়ারি) বিকেলে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এই কথা বলেন। নিয়োগ বাণিজ্যে জড়িত জীবন বীমা করপোরেশনের এমডিসহ দুজনের বিরুদ্ধে হওয়া মামলার বিষয়ে জানাতে এদিন সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন তিনি।

দুদক সচিব বলেন, জীবন বীমা করপোরেশনের উচ্চমান সহকারী, অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক ও অফিস সহায়ক পদে নিয়োগ পরীক্ষার এমসিকিউ প্রশ্নপত্র প্রণয়নের ক্ষেত্রে অভিনব পন্থা অবলম্বন করেন তারা। তারা প্রশ্নকর্তাদের প্রস্তুত করা প্রশ্ন ও তার সঠিক উত্তর নিজের মতো করে প্রশ্নপত্রের মধ্যে সাজিয়ে দেন।

মাহবুব হোসেন বলেন, এই প্রশ্নপত্র চাকরিপ্রার্থীদের সরবরাহ করে পরীক্ষা নিয়ে তারা সরকারি ক্ষমতার অপব্যবহার ও বিশ্বাস ভঙ্গ করেছেন। এর মাধ্যমে নিজেদের পছন্দের লোকদের নিয়োগদানের উদ্দেশ্যে প্রশ্নের উত্তরের ধারাবাহিক ক্রমবিন্যাস পরিবর্তন করে শাস্তিযোগ্য অপরাধ করেছেন।

এই অভিযোগে অন্য কারও বিরুদ্ধে মামলা হবে কিনা জানতে চাইলে দুদক সচিব বলেন, প্রাথমিকভাবে এমডিসহ দুজনের সংশ্লিষ্টতা পেয়েছে দুদক। পরবরর্তী সময়ে আরও কারো সংশ্লিষ্টতা পেলে তাদের নামও বেরিয়ে আসবে।

দুদক সচিব আরও বলেন, বাংলাদেশের যেকোনো দপ্তর, অধিদপ্তর বা সংস্থায় যেকোনো নিয়োগের একটি নিয়ম বা বিধি আছে। সেই নিয়ম মেনে নিয়োগ হলে কোনো সমস্যা নেই। এর ব্যত্যয় ঘটলেই সমস্যা।

তিনি বলেন, এখন থেকে নিয়োগে অনিয়মের বিষয়ে দুদক নজর রাখবে। আমাদের দৃঢ় বিশ্বাস এখন থেকে আর কোনো দপ্তর, সংস্থায় এমন ঘটনা ঘটবে না।

এসএম/কেএসআর/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]