‘শুধু মোস্তাফিজের ওপর নির্ভরশীল নয় বাংলাদেশের পেস বোলিং’

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২:২৪ পিএম, ০৯ অক্টোবর ২০২১

গত কয়েক বছর ধরেই বাংলাদেশ দলের পেস বোলিং ডিপার্টমেন্টের নেতৃত্ব দিচ্ছেন বাঁহাতি পেসার মোস্তাফিজুর রহমান। আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও তার ওপর থাকবে বড় দায়িত্ব। তবে শুধুমাত্র মোস্তাফিজের ওপরই নির্ভরশীল নয় বাংলাদেশের পেস বোলিং- এমনটাই মনে করেন বাংলাদেশের পেস বোলিং কোচ ওটিস গিবসন।

প্রশ্ন রাখা হয়েছিলো, গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পর থেকে মোস্তাফিজই বাংলাদেশ দলের পেস বোলিংয়ের নেতৃত্ব দিচ্ছেন। আপনার কি মনে হয়, বিশ্বকাপে ভালো করার জন্য অন্যদেরও এগিয়ে আসতে হবে? এর উত্তরেই মূলত অন্যদের প্রতি আস্থার কথা জানিয়েছে টাইগারদের পেস বোলিং কোচ।

ক্রিকেটভিত্তিক জনপ্রিয় ওয়েবসাইট ক্রিকবাজকে দেয়া সাক্ষাৎকারে গিবসন বলেছেন, ‘আমার মনে হয় না, মোস্তাফিজ বা অন্য শুধু একজনের ওপর নির্ভরশীল আমরা। আমার মতে, তাসকিন, শরিফুল এবং সাইফউদ্দিনের ভালো একটি বিশ্বকাপ কাটবে। তো যেই কম্বিনেশনেই খেলানোর পরিকল্পনা করুক টিম ম্যানেজম্যান্ট, ছেলেরা সুযোগ কাজে লাগিয়ে সেরাটা দিতে পারবে।’

চলতি আইপিএলে রাজস্থান রয়্যালসের হয়ে দুর্দান্ত বোলিং করেছেন মোস্তাফিজ। শেষের দুই-তিন ম্যাচে ঠিক প্রত্যাশামাফিক না হলেও, পুরো আসরে তার জাদুতে বশীভূত হয়েছে ব্যাটাররা। সবমিলিয়ে এবারের আসরে ১৪ ম্যাচে ১৪ উইকেট নিয়েছেন তিনি। বেশিরভাগ ম্যাচেই ডেথ ওভারে দেখিয়েছেন নিজের ভেলকি।

দ্য ফিজের এমন পারফরম্যান্স দেখে মোটেও অবাক হননি গিবসন, ‘আইপিএলে তাকে ভালো করতে দেখে আমি বিস্মিত হইনি। সে দারুণ উন্নতি করছে। সে যা করে তাতে তার নিয়ন্ত্রণ খুব ভালো এবং যে দায়িত্ব দেয়া হয় সেটা খুব ভালো ভাবে বুঝতে পারে। আইপিএলে তাকে ভালো করতে দেখে আমি খুশি। আশা করবো বিশ্বকাপেও এই একই ফর্ম ধরে রাখতে পারবে।’

বিশ্বকাপের উদ্দেশে দেশ ছাড়ার আগে সাবেক অধিনায়ক ও দেশের কিংবদন্তি পেসার মাশরাফি বিন মর্তুজার সঙ্গে অনুশীলন সেশন করেছিলেন বিশ্বকাপ দলের ডানহাতি পেসার তাসকিন আহমেদ। এটিকে দলের তরুণ পেসারদের জন্য ইতিবাচক দিক হিসেবেই দেখছেন গিবসন।

তার ভাষ্য, ‘বাংলাদেশ ক্রিকেটের কিংবদন্তি মাশরাফি। সে দেশের হয়ে অনেক ভালো করেছে। সে তার জ্ঞান ও অভিজ্ঞতা নতুনদের মাঝে বিলিয়ে দেয়ার জন্য প্রস্তুত দেখে ভালো লাগছে। আমি সবসময়ই তাসকিন বা অন্যান্য বোলারদের বলেছি, তারা যেনো মাশরাফির সঙ্গে কথা বলে। এটা দলের জন্যই ভালো।’

এসএএস/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]