ক্রিকেটারদের পর এবার দেশের মানুষকে ঈদ উপহার দিলেন ফুটবলাররা

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৮:৪৩ পিএম, ০৬ জুন ২০১৯

রবিউল হাসানকে চেনেন? না চিনলে চিনে নিন। টাঙ্গাইলের তরুণ এ ফুটবলারই বৃহস্পতিবার বিকেলে ১৬ কোটি মানুষকে উপহার দিয়েছেন দুর্দান্ত এক জয়। এটা কোন আমন্ত্রণমূলক টুর্নামেন্টের কিংবা প্রীতি ম্যাচের নয়, রবিউল জয় এনে দিয়েছেন কাতার-২০২২ বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচে। যে জয়ে বাংলাদেশের সামনে উজ্জ্বল হয়েছে বাছাইয়ের দ্বিতীয় রাউন্ডে ওঠার সম্ভাবনা।

ঈদের আগে বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার মতো দলকে হারিয়ে সমর্থকদের অগ্রিম ঈদ উপহার দিয়েছেন জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা। এবার ঈদের পরের দিন দেশবাসীকে জয় উপহার দিলেন জাতীয় দলের ফুটবলররা।

কেনিংটন ওভালে অবশ্য নিউজিল্যান্ডের কাছে বিশ্বকাপে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে একটুর জন্য জয় পায়নি বাংলাদেশ। তবে প্রথম ম্যাচে বড় জয়ের আনন্দ এখনও কাটেনি সমর্থকদের। এরই মধ্যে লাওসে দেশের পতাকা উড়ালেন জামাল ভূঁইয়ারা। মাশরাফিরা যেমন লাল-সবুজ পতাকা বুকে নিয়ে ক্রিকেট মাঠে লড়াই করেন, তেমন জামাল ভূঁইয়াদের বুকেও থাকে সেই জাতীয় পতাকা।

বিশ্বকাপের বাছাই দৌঁড়ে টিকে থাকতে হলে অ্যাওয়ে ম্যাচটি বেশি গুরুত্বপূর্ণ ছিল জেমি ডে'র দলের। ড্র করে ফিরলেও ভালো সম্ভাবনা থাকতো লাল-সবুজের দেশের। কিন্তু ড্র নয়, জয় নিয়েই ফিরছেন জামাল ভূঁইয়ারা।

ম্যাচের আগের বিকেলে অফিসিয়াল সংবাদ সম্মেলনে কোচ জেমি ডে এবং অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়া বলেছিলেন, তারা লাওসের মাঠেই কাজ এগিয়ে রাখতে চান। কথা রেখেছেন অধিনায়ক। লাওসকে তাদের মাটিতে হারিয়ে বিশ্বকাপ বাছাইয়ের দ্বিতীয় পর্বে ওঠার রাস্তাটি চওড়া করে রাখলো তারা।

লন্ডন থেকে মুখ গোমরা করে ক্রিকেটাররা কার্ডিফ গেলেও লাওসের ভিয়েনতিয়ান থেকে লাল-সবুজ পতাকা উঁচিয়েই ঢাকায় ফেরার প্রস্তুতি নিচ্ছেন রবিউলরা। ১১ জুন আরো একবার লাওসের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। সে ম্যাচটি ঢাকায়, ঘরের মাঠে। বাংলাদেশকে পেছনে ফেলতে হলে লাওসকে জিততে হবে ২-০ গোলে। আর বাংলাদেশের হার এড়ালেই চলবে।

আরআই/এমএমআর/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :