বেহেস্ত কামনাকারী অধ্যক্ষ দু'দিনের রিমান্ডে

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি টাঙ্গাইল
প্রকাশিত: ০১:২৬ পিএম, ১৯ ডিসেম্বর ২০১৭ | আপডেট: ০১:৩৮ পিএম, ১৯ ডিসেম্বর ২০১৭
বেহেস্ত কামনাকারী অধ্যক্ষ দু'দিনের রিমান্ডে

টাঙ্গাইলের গোপালপুরে বিজয় দিবসে বঙ্গবন্ধুর খুনিদের জন্য বেহেস্ত কামনা করা মাদরাসার অধ্যক্ষ ফায়জুল আমীর সরকারকে মঙ্গলবার বিকেলে দু’দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

টাঙ্গাইল বিচারিক হাকিম আদালতের বিচারক গোলাম কিবরিয়া শুনানি শেষে দু’দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা গোপালপুর থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) আব্দুল হাই সোমবার অধ্যক্ষ ফাইজুল আমির সরকারের পাঁচদিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে আবেদন করেন।

গত শনিবার বিজয় দিবস উপলক্ষে গোপালপুর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কার্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণের পূর্বে একাত্তরের শহীদদের রুহের মাগফেরাত কামনা করে দোয়ার আয়োজন করা হয়। উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত এ দোয়া অনুষ্ঠানে মোনাজাতে পরিচালনা করেন গোপালপুর কামিল মাদরাসার অধ্যক্ষ ড. ফায়জুল আমির সরকার।

দোয়া অনুষ্ঠানে ফায়জুল আমির সরকার বঙ্গবন্ধু হত্যাকারীদের জন্য দোয়া করেন। তার এ ধরনের বক্তব্যে উপস্থিত সকলেই হতবাক হয়ে যান। এ ঘটনার পর ফয়জুল আমীরকে পুলিশ আটক করে।

ওইদিন সন্ধ্যায় টাঙ্গাইল জেলা পরিষদের সদস্য মুক্তিযোদ্ধা আবদুল কাদের তালুকদার বাদী হয়ে গোপালপুর থানায় বিশেষ ক্ষমতা আইন-১৬ ধারায় অধ্যক্ষ ড. ফায়জুল আমীর সরকারের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। আটক অধ্যক্ষকে রোববার আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়।

এ প্রসঙ্গে গোপালপুর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকতা (ওসি) হাসান আল মামুন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, বুধবার ২০ ডিসেম্বর ফায়জুল আমীর সরকারকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য কারাগার থেকে নিয়ে আসা হবে। তিনি জামায়াত-শিবির বা জঙ্গি গোষ্ঠির সঙ্গে জড়িত কি-না সে সম্পর্কে নিবীরভাবে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রিমান্ডে আনা হচ্ছে।

আরিফ উর রহমান টগর/এমএএস/পিআর