ফতুল্লায় সিগারেটের আগুনে স্বামীর মৃত্যু, স্ত্রী-মেয়ে দগ্ধ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি নারায়ণগঞ্জ
প্রকাশিত: ০১:৩৮ এএম, ২২ নভেম্বর ২০২০
প্রতীকী ছবি

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় এক বাড়িতে সিগারেট থেকে লাগা আগুনে একই পরিবারের তিনজন দগ্ধ হয়েছে। তার মধ্যে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দীপায়ন সরকার (৩৫) নাম এক ব্যক্তি মারা গেছেন।

অগ্নিকাণ্ডে দগ্ধ তার স্ত্রী পপি সরকার (৩০) ও শিশুকন্যা দিয়া রানী সরকারের (৫) অবস্থা আশঙ্কাজনক। তারা ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

শনিবার (২১ নভেম্বর) রাত ৮টার দিকে ফতুল্লার দাপা ইদ্রাকপুর সরদার বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। নিহত দীপায়ন সরকার নেত্রকোনার খালিয়াপুড়ি থানার ইছাপুর এলাকার রাম গোপাল সরকারের ছেলে।

এর আগে শুক্রবার রাত দেড়টার দিকে ফতুল্লার দাপা ইদ্রাকপুর সরদার বাড়ির আনোয়ার হোসেনের ভাড়া বাসায় সিগারেটের আগুন থেকে মশারিত অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। ভাড়াটিয়া বাসায় থাকায় একই পরিবারের তিনজন অগ্নিদ্বগ্ধ হয়।

ফতুল্লা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আসলাম হোসেন জানান, দীপায়ন সরকার সপরিবারে ফতুল্লার দাপা ইদ্রাকপুর সরদার বাড়ির আনোয়ার হোসেনের ভাড়া বাসায় একটি রুমে বসবাস করতেন। শুক্রবার রাতে দীপায়ন ঘরের ভেতরে শুয়ে সিগারেট ধরানোর পর ঘুমিয়ে পড়েন। সেই সিগারেটের আগুন থেকে প্রথমে বালিশে ছড়ায়। পরে মশারিতে আগুন ধরে যায়। এতে তারা দগ্ধ হন।

তিনি আরও বলেন, তাদের চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে তিনজনকে উদ্ধার করে ঢামেক হাসপাতালে বার্ন ইউনিটে ভর্তি করেন। চিকিৎসাধীন অবস্থায় শনিবার রাতে দীপায়ন সরকার মারা যান। আর পপি সরকার ও তার শিশুকন্যা দিয়া রানীর অবস্থাও আশঙ্কাজনক। এ বিষয়ে তদন্ত করা হচ্ছে।

মো. শাহাদাত হোসেন/এমএসএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]