সিবগাতুর রহমানের কবিতা: সুপ্ত আরতি

সাহিত্য ডেস্ক
সাহিত্য ডেস্ক সাহিত্য ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪:১৫ পিএম, ১৬ জুন ২০২২

কতকাল ধরে ঘুমিয়ে রয়েছো
একলা শূন্য ঘরে,
তোমার কাছে ছুটে যেতে মাগো
মন যে কেমন করে।

ব্যথা-বেদনায় যে বাছারে মাগো
রেখেছো বুকের ’পরে,
অকূল নিদানে একা ফেলে তারে
ঘুমাও কেমন করে?

তোমার দুয়ারে কড়া নাড়ে ওগো
তোমারি বাছাধন,
জেগে উঠে মাগো বুকে টেনে নাও
মেলো তব দু’নয়ন।

যেই ক্ষণে তুমি সব মায়া ছেড়ে
গিয়েছিলে পরপারে,
সোনা মুখখানি জড়ায়ে ছিল
আমার অঞ্জলি ভরে।

উঁচু করে ধরে সোনা মুখখানি
কেঁদে কেঁদে সেইদিন,
বলেছি তোমায় যেও না গো ছেড়ে
শোধিতে পারিনি ঋণ।

মনে হয় যেন আজও ধরে আছি
সেই প্রিয় সোনা মুখ,
যেই মুখে জমা করে রাখা ছিল
আমার সকল সুখ।

কাটে না তো দিন তুমিহীনা মাগো
আঁখি ঝরে অবিরাম,
দিবানিশি কাঁদি বসিয়া বিজনে
জপি শুধু তব নাম।

দুই হাত তুলে করি মোনাজাত
হে রহিম-রহমান,
মায়েরে আমার বেহেশতে রেখো
দিও তারে সম্মান।

এসইউ/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]