দায়ী রাসায়নিক মজুতকারী-বাড়ি মালিকের শাস্তি দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:১৭ পিএম, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

চকবাজারের চুড়িহাট্টায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় বেআইনিভাবে রাসায়নিক কারখানা, দাহ্য উপকরণের গোডাউন স্থাপন এবং ভাড়া দেয়া বাড়ির মালিক-ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানিয়েছে পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলন (পবা)।

রোববার (২৪ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর কলাবাগনে পবা কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ দাবি জানানো হয়।

বক্তারা বলেন, মর্মান্তিক এ দুঘর্টনার জন্য দায়ী প্রথমত অত্র এলাকার রাসায়নিক ব্যবসায়ী এবং বাড়ির মালিকরা। যারা দাহ্য পদার্থের গোডাউন ভাড়া দেন, আইনকে তোয়াক্কা না করে আবাসিক এলাকায় ব্যবসা চালিয়ে আসছেন। এই অপরিমেয় ক্ষতির জন্য দায়ী কারখানা ও বাড়ির মালিককে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। সে সঙ্গে সরকারি দায়িত্বশীল সংস্থাগুলো কোনোভাবেই দায় এড়াতে পারেন না। বিশেষ করে সিটি কর্পোরেশনের যেসব কর্মকর্তার গাফলতিতে এ এলাকায় কারখানা বা গোড়াউন গড়ে উঠছে তাদের বিরুদ্ধেও আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে হবে।

তারা বলেন, ২০১৭ সালে ফায়ার সার্ভিস এক জরিপের মাধ্যমে ৪০০ বাড়িতে রাসায়নিক কারখানা শনাক্ত এবং সে তালিকা সিটি কর্পোরেশনকে দেয়। কিন্তু এ দীর্ঘ সময়ে সিটি কর্পোরেশন এ সব কারখানা ও গুদাম সরাতে কোনো ফলপ্রসূ উদ্যোগ নেয়নি।

বক্তার আরও বলেন, শহরে যে কোনো ব্যবসার জন্য সিটি কর্পোরেশনের লাইন্সেস নিতে হয়, রাসায়নিক আমদানি ও মজুতের ক্ষেত্রে বিস্ফোরক অধিদফতরের অনুমোদন প্রয়োজন, কারখানা স্থাপনে ফায়ার সার্ভিস এবং পরিবেশ অধিদফতরের অনুমোদন প্রয়োজন। এছাড়া শ্রমিকদের নিরাপত্তা এবং মান নিয়ন্ত্রণে কাজ করে কারাখানা পরিদর্শন অধিদফতর। সংশ্লিষ্ট সংস্থাগুলো আইন ও নীতিমালা বাস্তবায়নে জনবল ও বাজেটে কোনো ঘাটতি আছে রয়েছে কীনা, সংস্থাগুলোর বিগত দিনে দায়িত্বশীল ব্যক্তিদের দায়িত্বে অবহেলা বা অসহযোগিতা করেছে কীনা অথবা ব্যবসায়ীরা সরকারি সংস্থাগুলোর ক্ষমতাকে অবজ্ঞা করছে কীনা তাও খুঁজে দেখা জরুরি।

পবার চেয়ারম্যান আবু নাসের খানের সভাপতিত্বে সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কেমিক্যাল সোসাইটির সাবেক সভাপতি ইউজিসি প্রফেসর মুহিবুর রহমান, পবার সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী মো. আবদুস সোবহান, সম্পাদক ফেরদৌস আহমেদ উজ্জ্বল, নির্বাহী সদস্য সেলিম আহমেদ, বিসিএইচআরডির নির্বাহী পরিচালক মাহবুল হক প্রমুখ।

এএস/এএইচ/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :