ফেদেরারকে কাঁপিয়ে দিয়েছিলেন ১৮৯ নম্বর

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৫:৫৫ পিএম, ১৭ জানুয়ারি ২০১৯

ম্যাচটা শেষ পর্যন্ত জিতেছেন রজার ফেদেরারই। বিশ্বের তিন নম্বর বাছাই মেলবোর্নে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের তৃতীয় রাউন্ডে ওঠার লড়াইয়ে মাঠে নেমেছিলেন ১৮৯তম বাছাই ড্যান ইভান্সের বিপক্ষে।

র্যাংকিংয়ে চোখ রাখলেই দু’জনের পার্থক্য বোঝা যায়। কিন্তু মেলবোর্ন পার্কে দু’জনের লড়াইয়ের পর সেই পার্থক্য ঘুচে গেছে পুরোটাই। ১৮৯তম ড্যান ইভান্স বুঝিয়ে দিলেন, র্যাংকিং কেবলই একটি সংখ্যা। এই সংখ্যা দিয়ে কাউকে বিচার করাটা বোকামি। মাঠের লড়াই’ই আসল।

ড্যান ইভান্স শেষ পর্যন্ত জিততে পারেননি। তবে ঘাম ছুটিয়েছেন বিশ্বের এক সময়ের সেরা টেনিস খেলোয়াড় রজার ফেদেরারের। রীতিমত কাঁপিয়ে দিয়েছিলেন। ২ ঘণ্টা ৩৫ মিনিটের লড়াইয়ে শেষ পর্যন্ত ফেদেরার জিতলেন ৭-৬ (৭-৫), ৭-৬ (৭-৫), ৬-৩ সেটের ব্যবধানে।

৬বার করে অস্ট্রেলিয়ান ওপেন জিতে ইতিহাসের পাতায় সমানভাবে অবস্থান করছেন রয় এমারসন, নোভাক জকোভিচ এবং রজার ফেদেরার। সবাইকে ছাড়িয়ে যাওয়ার সুবর্ণ সুযোগ এবার ফেদেরারের হাতে। সে লক্ষ্যে (সপ্তমবার অস্ট্রেলিয়ান ওপেন জয়) শুরুটা করেছেন দুর্দান্ত।

মেলবোর্ন পার্কে উজবেকিস্তানের ডেনিস ইস্তোমিনকে স্ট্রেট সেটে হারিয়েছেন প্রথম ম্যাচেই। বুধবার রাউন্ড অফ ৬৪’র ম্যাচেও স্ট্রেট সেটে জয় তুলে নিলেন বিশ্বের তিন নম্বর। তবে দ্বিতীয় রাউন্ডের ম্যাচে ফেদেরারের ঘাম ঝরিয়ে গেলেন ড্যান ইভান্স।

সরাসরি সেটে জয় ছিনিয়ে নিলেও ড্যান ইভান্সের বিপক্ষে প্রথম দুটি সেটের নিষ্পত্তি হল টাইব্রেকারে। দুরন্ত ইভান্স কঠিন লড়াই ছুঁড়ে দিলেন সাবেক বিশ্বসেরা তথা ২০ বারের গ্র্যান্ডস্লাম জয়ীকে।

ম্যাচ শুরুর আগে ব্রিটিশ ইভান্সের কঠিন লড়াই হয়তো ঘুর্ণাক্ষরেও আঁচ করতে পারেননি সুইশ তারকা। নিষিদ্ধ ড্রাগ সেবনের দায়ে একবছর নিষিদ্ধ থাকার পর প্রতিদ্বন্দ্বীর দুরন্ত লড়াইকে কুর্নিশ জানালেন ফেদেরার। সুইশ কিংবদন্তির কথায়, ‘একসময় মনে হচ্ছিল আমি যেন আমার প্রতিচ্ছবির সঙ্গে লড়াই করছি।’

অন্যদিকে ফেদেরারকে কঠিন লড়াই ছুঁড়ে দিয়েও খুশি নন বিশ্বের ১৮৯ নম্বর। ব্রিটিশ তারকার কথায়, ‘ভাল প্লেয়ারদের বিরুদ্ধে কোর্টে নেমে খেলাটা অনেক সহজ। কারণ প্রত্যাশার চাপ অনেক কম থাকে; কিন্তু ফেদেরারের বিরুদ্ধে জয়ের প্রত্যাশী হয়েই কোর্টে নেমেছিলাম আমি’- জানালেন ইভান্স।

প্রথম দুই সেটে জয়ের জন্য ফেদেরারকে টাইব্রেকার পর্যন্ত যেতে হয়। প্রথম সেটে সুইস তারকাকে এক ইঞ্চিও জমি ছাড়েননি বিশ্বের ৪১ নম্বর। সমানতালে লড়াই ছুঁড়ে দিয়ে প্রথম সেট টাইব্রেকার পর্যন্ত নিয়ে যান ইভান্স; কিন্তু টাইব্রেকারে টানা চারটি পয়েন্ট খুইয়ে প্রথম সেট হেরে বসেন এই ব্রিটিশ টেনিস তারকা। প্রথম সেটের ফলাফল ফেদেরারের পক্ষে ৭-৬ (৭-৫)।

দ্বিতীয় সেটেও তুলনামূলক লড়াই ছুঁড়ে দেন ইভান্স। টাইব্রেকারে ৭-৩ ব্যবধানে হেরে দ্বিতীয় সেট হাতছাড়া করেন তিনি। যদিও এরপর তৃতীয় সেটে ফেদেরারের সংহার মূর্তির সামনে আর দাঁড়াতে পারেননি ব্রিটেনের চার নম্বর টেনিস তারকা।

অ্যান্ডি মারের বিদায়ের পর অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে ইভান্সকে নিয়েই বুক বেধেছিলেন ব্রিটেনের টেনিস অনুরাগীরা; কিন্তু ৩-৬ ব্যাবধানে হেরে দ্বিতীয় রাউন্ড থেকে বিদায় নিশ্চিত হয় ড্যান ইভান্সের। অন্যদিকে ইভান্সকে হারিয়ে শুক্রবার তৃতীয় রাউন্ডে যুক্তরাষ্ট্রের টেলর ফ্রিৎজের মুখোমুখি হবেন ফেদেরার।

আইএইচএস/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :