বঙ্গবন্ধুকে ‘বিশ্ববন্ধু’ উপাধির আনুষ্ঠানিক স্বীকৃতি দাবি

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৬:৫৬ পিএম, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে ‘বিশ্ববন্ধু’ এবং কাজী নজরুল ইসলামকে ‘জাতীয় কবি’ হিসেবে স্বীকৃতির প্রজ্ঞাপন দাবিতে গণস্বাক্ষর কর্মসূচি ও সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির নেতারা সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন। এতে লিখিত বক্তব্য রাখেন সমিতির সভাপতি হিসাববিজ্ঞান ও তথ্যপদ্ধতি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক মো. শফিকুল ইসলাম।

তিনি বক্তব্যে উল্লেখ করেন, জাতিসংঘের একটি অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধুকে ‘বিশ্ববন্ধু’ হিসেবে অখ্যায়িত করা হয়। কিন্তু এখনও দাফতরিকভাবে বঙ্গবন্ধুকে ‘বিশ্ববন্ধু’ হিসেবে স্বীকৃতি দেয়া হয়নি। বঙ্গবন্ধু শুধু বাঙালির নেতা বা বন্ধু ছিলেন না। বঙ্গবন্ধুর অবদান শুধু বাঙালি জাতির মধ্যে সীমিত নয়। আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে তার অবদান অপরিসীম। তিনি নিপীড়িত মানুষের নেতা ছিলেন।

মুজিববর্ষের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যেহেতু বিশ্বনেতারা অংশগ্রহণ করবেন, তাই বঙ্গবন্ধুকে ‘বিশ্ববন্ধু’ হিসেবে স্বীকৃতি অর্জনের জন্য বর্তমান সরকার ও আওয়ামী লীগের প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়া প্রয়োজন বলে মনে করেন বিশ্ববিদ্যালয়টির শিক্ষক সমিতির নেতারা।

Kazi-2.jpg

তারা বলেন, গত ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবসে জাতিসংঘের সদর দফতরে আয়োজিত আলোচনা অনুষ্ঠানে আলোচকবৃন্দ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে ‘বিশ্ববন্ধু’ হিসেবে আখ্যায়িত করেন। বৈশ্বিক পরিমণ্ডলে বাংলাদেশকে এগিয়ে নেয়া এবং আন্তর্জাতিক অঙ্গণে বিশ্বনেতা হিসেবে শেখ মুজিবুর রহমানের অবদানের প্রেক্ষিতে তাকে এ উপাধিতে ভূষিত করায় আমরা অত্যন্ত আনন্দিত। এই বিষয়টিকে আমরা যথার্থ এবং সময়োচিত বলে মনে করি। সঙ্গত কারণেই এ উপাধি নিঃসন্দেহে বৈশ্বিক স্বীকৃতির দাবি রাখে বলে দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করেন নেতারা।

শিক্ষক সমিতির নেতারা আর বলেন, শেখ মুজিবুর রহমান কবি কাজী নজরুল ইসলামকে ভারত থেকে এনে বাংলাদেশের জাতীয় কবি হিসেবে স্বীকৃতি প্রদান করলেও এখনো প্রজ্ঞাপন আকারে স্বীকৃতি প্রদান করা হয়নি। মুজিববর্ষে কবি কাজী নজরুল ইসলামকে জাতীয় কবি হিসেবে প্রজ্ঞাপন জারির মাধ্যমে সরকারের কাছে অনুরোধ জানান তারা।

২০১৯ সালের ১৫ আগস্ট জাতিসংঘ সদর দফতরে আয়োজিত জাতীয় শোক দিবসে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে ‘বিশ্ববন্ধু’ (ফ্রেন্ড অব দ্য ওয়ার্ল্ড) হিসেবে আখ্যা দেন সংস্থাটির সাবেক আন্ডার সেক্রেটারি জেনারেল ও জাতিসংঘে নিযুক্ত বাংলাদেশের সাবেক স্থায়ী প্রতিনিধি রাষ্ট্রদূত আনোয়ারুল করিম চৌধুরী। এছাড়া শেখ মুজিবুর রহমানকে ‘বিশ্ববন্ধু’ হিসেবে ১৯৭৩ সালের ২৩ মে ‘জুলিও কুরি’ পুরস্কার দেয়ার সময় বিশ্ব শান্তি পরিষদ এ উপাধিতে ভূষিত করেন।

এমএসএইচ/এমএস

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - jagofeature@gmail.com