সানি ফিরে এলো লাশ হয়ে

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি ফরিদপুর
প্রকাশিত: ০৪:৫৫ পিএম, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯

মানবপাচার চক্রের প্রলোভনে পড়ে নৌকাযোগে লিবিয়া হয়ে ইতালিতে যাওয়ার পথে মারা যাওয়া সানি মাতুব্বারের (২১) মরদেহ দেশে পৌঁছেছে। রোববার দুপুরে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে সানির মরদেহ দেশে আনা হয়। পরে ঢাকা থেকে মরদেহ ফরিদপুরের সালথা উপজেলার মাঝারদিয়া গ্রামের বাড়িতে নেয়া হয়। ওইদিন সন্ধ্যায় মাঝারদিয়া ঈদগাহ ময়দানে জানাজা শেষে তাকে দাফন করা হয়েছে।

মানবপাচার চক্রের প্রলোভনে পড়ে নৌকাযোগে লিবিয়া হয়ে ইতালিতে যাওয়ার পথে মারা যায় ফরিদপুরের তিন যুবক। এর আগে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে গত ১৫ সেপ্টেম্বর সায়েম ও সেলিমের মরদেহ নিয়ে আসা হয়।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, ফরিদপুর শহরের ডোমরাকান্দি এলাকার ইতালি প্রবাসী প্রতারক মফিজুর রহমান ফরিদপুর সদর উপজেলার বিল্লাল মোল্লার ছেলে সায়েম মোল্লা (১৭), সালথা উপজেলার মাঝারদিয়া গ্রামের আব্দুল আলিমের ছেলে সেলিম উদ্দিন (৩০) ও মফিজ মাতব্বরের ছেলে সানি মাতব্বরকে (২৭) ইতালির একটি ইলেকট্রনিকস কোম্পানিতে ৮০ হাজার টাকা বেতনে কাজের প্রলোভন দেখিয়ে প্রত্যেকের কাছ থেকে সাত লাখ টাকা করে নেন। ১০ মে ইতালির উদ্দেশে রওনা হয়ে বাংলাদেশ থেকে তাদের লিবিয়ায় নিয়ে যায়। ৩ জুন লিবিয়া থেকে সমুদ্রপথে নৌকাযোগে ইতালি রওনা হয় তারা। ইতালি যাওয়ার পথে সানি মোবাইলের মাধ্যমে পরিবারকে জানায়, একটি নৌকাযোগে লিবিয়া থেকে সমুদ্রপথে তারা ইতালির উদ্দেশে রওনা হয়েছে। এরপর থেকে তার সঙ্গে পরিবারের সদস্যদের আর যোগাযোগ হয়নি।

এদিকে সানির মরদেহ গ্রামের বাড়িতে পৌঁছালে স্বজনদের আহাজারিতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে। নিহতের স্বজনরা ওই প্রতারকের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেছেন।

পড়ুন : মানবপাচারের আরও খবর

বি কে সিকদার সজল/এমবিআর/জেআইএম