ব্যাংকে দুবারের বেশি মাতৃত্বকালীন ছুটি নয়

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:৫২ পিএম, ১২ জানুয়ারি ২০২০
ফাইল ছবি

ব্যাংকের স্থায়ী বা অস্থায়ী সব নারী কর্মী সর্বোচ্চ দু'বার মাতৃত্বকালীন ছুটি ভোগ করতে পারবেন। প্রতিবার ছয় মাস করে ছুটি পাবেন। ওই সময়ে স্বাভাবিক বেতন-ভাতা পাবেন তারা। ছুটির কারণে কারও বার্ষিক কর্মমূল্যায়নে অবনমন করা যাবে না।

বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যাংকিং প্রবিধি ও নীতি বিভাগ এ নির্দেশনা দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে।

এর আগে ২০১৩ সালেও বাংলাদেশ ব্যাংক এই নির্দেশনা দিয়েছিল। কিন্তু ব্যাংকগুলো মাতৃত্বকালীন ছুটির নির্দেশনাগুলো যথাযথভাবে পালন করছে না। এ কারণে গত বৃহস্পতিবার (৯ জানুয়ারি) বাংলাদেশ ব্যাংক এ-সংক্রান্ত একটি সার্কুলার সব ব্যাংকের নির্বাহীদের কাছে পাঠিয়েছে।

সার্কুলারে বলা হয়েছে, চাকরিজীবনে একজন নারী কর্মকর্তা-কর্মচারী সর্বোচ্চ দু'বার মাতৃত্বকালীন ছুটি ভোগ করতে পারবেন। প্রতিবার ছুটির মেয়াদ হবে ছয় মাস। স্থায়ী বা অস্থায়ী একজন কর্মী চাকরির মেয়াদ নির্বিশেষে এ ছুটি পাবেন। অন্য কোনো ছুটির সঙ্গে এ ছুটি সমন্বয় করা যাবে না। মাতৃত্বকালীন ছুটির সময়ে স্বাভাবিক বেতন ও ভাতা দিতে হবে। ছুটির বিষয়ে উত্থাপিত বিরোধ নিষ্পত্তির ক্ষেত্রে সরকারি বিধান অনুসরণ করা হবে।

সার্কুলারে বলা হয়েছে, ব্যাংকিং খাতে মাতৃত্বকালীন ছুটির বিধান প্রয়োগে ভিন্নতা দেখা যাচ্ছে। এমন প্রেক্ষাপটে সরকারের মাতৃত্বকালীন ছুটির বিধান এবং ইতোমধ্যে দেওয়া নির্দেশনার আলোকে ব্যাংকের নারী কর্মীদের ক্ষেত্রেও অভিন্ন নীতিমালা অনুসরণ করতে হবে।

এছাড়া মাতৃত্বকালীন ছুটির সময়ে বার্ষিক কর্মমূল্যায়নের ক্ষেত্রে আগের বছরের কর্মমূল্যায়ন বা পূর্ববর্তী তিন বছরের বার্ষিক কর্মমূল্যায়নের গড়ের মধ্যে যেটি অধিকতর উত্তম, তা বিবেচনায় নিতে হবে।

এসআই/এনএফ/এমএস