আশরাফুলের সেঞ্চুরি মাটি করে দিলেন শাহরিয়ার নাফীস

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৫:৩৩ পিএম, ২৯ মার্চ ২০১৮

ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের (ডিপিএল) রেলিগেশন লিগে মুখোমুখি হয়েছিল কলাবাগান ক্রীড়া চক্র আর অগ্রণী ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাব। ম্যাচে কলাবাগানের হয়ে দুর্দান্ত এক সেঞ্চুরি হাঁকান মোহাম্মদ আশরাফুল। তবে দিনশেষে পরাজিত দলেই তিনি। জবাবে যে সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন অগ্রণী ব্যাংকের শাহরিয়ার নাফীসও। তার এই সেঞ্চুরিতে ভর করে কলাবাগানকে ৬ উইকেট আর ২৫ বল হাতে রেখেই হারিয়েছে অগ্রণী ব্যাংক।

সাভারের চার নাম্বার মাঠে টসে জিতে ব্যাটিং বেছে নিয়েছিল কলাবাগান। ৩৬ রানের মধ্যে ৩ উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে তারা। তবে সেখান থেকে দলকে দারুণভাবে এগিয়ে নিয়ে যান মোহাম্মদ আশরাফুল। তাইবুর রহমানকে নিয়ে চতুর্থ উইকেটে ১৩৬ রানের বড় জুটি গড়েন বাংলাদেশ দলের সাবেক অধিনায়ক।

১১৭ বলে ১০ বাউন্ডারিতে ৮২ রান করে সৌম্য সরকারের শিকার হয়ে ফেরেন তাইবুর। তবে সেঞ্চুরি তুলে নিতে ভুল করেননি আশরাফুল। ১৩৭ বলে ৮ বাউন্ডারি আর ২ ছক্কায় শেষপর্যন্ত তিনি অপরাজিত ছিলেন ১০৩ রানে। এটি চলতি মৌসুমে তার চতুর্থ সেঞ্চুরি।

শেষদিকে কলাবাগানের হয়ে ১৩ বলে ২৭ রানের (৩ ছক্কায়) এক ঝড়ো ইনিংস খেলেছেন রিয়াজুল হুদা। কিন্তু তাতেও ৫ উইকেটে ২৪৬ রানের বেশি এগোতে পারেনি দলটি।

জবাবে উদ্বোধনী জুটিতে ৪৫ রান তুলে সৌম্য সরকার (২৪) ফিরলেও দ্বিতীয় উইকেটে সালমান হোসেনকে নিয়ে দুর্দান্ত এক জুটি গড়েছেন শাহরিয়ার নাফীস। তাদের ১৭২ রানের জুটিতেই মূলত ম্যাচের লাগাম নিয়ে নিয়েছে অগ্রণী ব্যাংক। ১৪২ বলে ১৩ বাউন্ডারি আর ২ ছক্কায় ১০৯ রান করে শাহরিয়ার নাফীস আশরাফুলের শিকার হয়ে ফিরলে ভেঙেছে এই জুটিটি।

সেঞ্চুরির খুব কাছে পৌঁছে গিয়েছিলেন সালমানও। তবে ৮৩ রানের মাথায় এসে আউট হয়েছেন এই ব্যাটসম্যান। পরে ৬ রান করা ধীমান ঘোষকেও তুলে নিয়েছেন আশরাফুল। তবে ততক্ষণে জয়ের একদম কাছে চলে আসে অগ্রণী ব্যাংক।

কলাবাগানের পক্ষে ২টি করে উইকেট নেন মোহাম্মদ আশরাফুল আর নাহিদ হাসান।

এমএমআর/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]