সৌম্যসহ বাদ পড়ছেন কয়েকজন, বিকল্প নেয়া হবে এইচপি থেকে!

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ১০:৪৫ এএম, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯

সোমবার দিনটুকু পার করে রাত পোহালে ভারত যাবে অনূর্ধ্ব-২৩ দল, মানে এইচপির তরুণ-নবীনরা। আর বুধবার, তথা ১৮ সেপ্টেম্বর শ্রীলঙ্কা যাবার কথা ‘এ’ দলের। সে অনুযায়ী খেলোয়াড় তালিকা চূড়ান্তও হয়ে গিয়েছিল।

কিন্তু শেষ খবর, ওই দুই দলে শেষ মুহূর্তে আসছে পরিবর্তনের ছোঁয়া। আফগানিস্তানের কিপক্ষে রোববার রাতে চরম নাকাল হওয়া বাংলাদেশ দলে রদবদল আনার চিন্তা চলছে টিম ম্যানেজমেন্টে। এ কারণে এখন ‘এ’ দল ও এইচপি বা অনূর্ধ্ব-২৩ দলে শেষ মুহূর্তে রদবদল করে ওই দুই দলের কিছু ক্রিকেটারকে জাতীয় দলে অন্তর্ভুক্ত করার চিন্তাও চলছে।

আগেই জানা, ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথম দুই ম্যাচের জন্য দল ঘোষণা করেছিল জাতীয় দলের নির্বাচকরা। দুই ম্যাচ শেষ হয়েছে রোববার রাতেই। আগামী পরশু, ১৮ সেপ্টেম্বর চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ফিরতি পর্বের প্রথম ম্যাচ জিম্বাবুয়ের সাথে।

তার আগে কি দলে পরিবর্তন আনা হবে? না একই দল থাকবে? খুব যৌক্তিকভাবেই জবাব আসছে, যে দলে রদবদল ঘটছে।

নির্বাচকদের ঘুম হারাম। সোমবার সকাল সকাল প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু এবং অপর নির্বাচক হাবিবুল বাশার বসছেন দল সাজাতে, ক্রিকেটার নির্বাচন করতে। সংশ্লিষ্ট সূত্র নিশ্চিত করেছে, দলে পরিবর্তন আসছে। আফগানিস্তানের সাথে করুণ পরিণতির পর দলে রদবদলের চিন্তা চূড়ান্ত বলে জানা গেছে।

প্রধান নির্বাচকের কথা শুনে মনে হলো, পরিবর্তন আসছে বড়-সড়ই। সৌম্য সরকার বাদ পড়ছেন- এটা নিশ্চিত। দুই ম্যাচে নিজেকে মেলে ধরতে না পারা সৌম্য সরকার নিশ্চিতভাবেই থাকছেন না পরের পর্বে।

মিনহাজুল আবেদিন নান্নুর কথা শুনে মনে হলো, আরও একাধিক পরিবর্তনের সম্ভাবনা আছে। সেটা বসে ঠিক করা হবে। তবে প্রাথমিকভাবে সাব্বির-মাহমুদউল্লাহসহ আরও কয়েকজনের প্রতি চোখ আছে। তাদের পারফরমেন্স খুঁটিয়ে দেখা হচ্ছে।

এদিকে যাদের বাদ দেয়া হবে, তাদের বিকল্প খুঁজতে এখন এইচপি থেকে ক্রিকেটার নেয়ার চিন্তা ভাবনা চলছে। আজ (সোমবার) সকালে শেরে বাংলায় বসে দল সাজানো হবে। এরপর চট্টগ্রাম যাবে সাকিব বাহিনী।

এদিকে বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটারদের আজ পুরো বিশ্রাম। আগামীকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা ছয়টায় ফ্লাডলাইট জ্বালিয়ে অনুশীলন জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে। কাজেই নির্বাচকরা একটু হলেও সময় পাচ্ছেন। আজ দুপুর ও বিকেলের মধ্যেই দল চূড়ান্ত করে ফেলতে পারেন তারা।

এআরবি/আইএইচএস/পিআর