নিঝুমদ্বীপের ১৫ হাজার অধিবাসী নিরাপদ আশ্রয়ে

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি নোয়াখালী
প্রকাশিত: ০৯:০২ এএম, ২৬ মে ২০২১

নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার অধিক ঝুঁকিপূর্ণ নিঝুমদ্বীপের ১৫ হাজার অধিবাসীকে নিরাপদ আশ্রয়ে নেয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৫ মে) রাত সাড়ে ৯টায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. ইমরান হোসেন।

তিনি বলেন, ‘জোয়ারের পানি নামতে শুরু করেছে। তবে বুধবার আবারও জোয়ার আসবে। সেজন্য নিঝুমদ্বীপের ১৫ হাজার অধিবাসীকে স্থানীয় আশ্রয়কেন্দ্রে আনা হয়েছে। এছাড়া সেখানে আরও ১৮১টি আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত রাখা হয়েছে। যাতে ৮০ হাজারের বেশি মানুষজনকে বিপদে আশ্রয় দেয়া যাবে।’

jagonews24

ইউএনও আরও বলেন, ‘আশ্রয়কেন্দ্রে অবস্থান করা লোকজনের জন্য পর্যাপ্ত পরিমাণে শুকনো খাবার দেয়া হয়েছে। এরমধ্য চিড়া, মুড়ি, চাল, খাবার স্যালাইন, মোমবাতি, দিয়াশলাইসহ বিভিন্ন প্রয়োজনীয় সামগ্রী রয়েছে।’

এদিকে ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের প্রভাবে মঙ্গলবার সকাল থেকে নোয়াখালী দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার উপকূল তীরবর্তী নিম্নাঞ্চলে পানি বাড়তে থাকে। এ সময় স্বাভাবিকের চেয়ে তিন-চার ফুট পানির নিচে তলিয়ে যায় অনেক এলাকা।

এরমধ্যে নিঝুমদ্বীপ ইউনিয়নের চারটি গ্রাম সম্পূর্ণ পানিতে প্লাবিত হয়।। এগুলো হচ্ছে, মোল্লা গ্রাম, মদিনা গ্রাম, বান্দাখালী গ্রাম ও মুন্সি গ্রাম।

jagonews24

নিঝুমদ্বীপ ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি মেম্বার কেপায়েত উদ্দিন জানান, নিঝুমদ্বীপে বেড়িবাঁধ না থাকায় স্থানীয় অধিবাসীদের মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে।

এসজে/এমকেএইচ

টাইমলাইন  

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]