পাকশীতে ছাত্রলীগ নেতা খুন, ১৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা

উপজেলা প্রতিনিধি উপজেলা প্রতিনিধি ঈশ্বরদী (পাবনা)
প্রকাশিত: ০৫:৪১ পিএম, ০৩ এপ্রিল ২০১৮

দেশের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্প রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুত প্রকল্পকে কেন্দ্র করে পাকশী এলাকার ব্যস্ততা গত রোববার থেকে হঠাৎ করে শান্ত হয়ে পড়েছে। রাজনৈতিক সহিংসতায় ছাত্রলীগ নেতা মারা যাওয়ার পর থেকে থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে পাকশী এলাকাজুড়ে।

আভ্যন্তরীণ কোন্দলের জের ধরে ঈশ্বরদীর পাকশী ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি সদরুল আলম পিন্টুকে (৩২) গুলি করে ও কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় ঈশ্বরদী থানায় একটি হত্যা মামলা করা হয়েছে। সোমবার রাতে নিহত পিন্টুর বাবা আব্দুল আজাদ বাদী হয়ে মামলাটি করেন।

ঈশ্বরদী থানা পুলিশের ওসি আজিম উদ্দীন জানান, মামলায় ছাত্রলীগ কর্মী সৌরভ হাসান ওরফে হাতকাটা টুনটুনিকে প্রধান আসামি করে ৯ জন নামীয় ও অজ্ঞাত ৫ জনসহ ১৪ জনকে আসামি করে মামলাটি করা হয়েছে। মঙ্গলবার বিকেল পর্যন্ত এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ।

আসামিদের বাড়ি-ঘর তালাবন্ধ অবস্থায় রয়েছে। বাড়ির লোকজন সবাই পালিয়ে গেছে বলে জানান এলাকাবাসী। এ অবস্থায় সহিংসতা এড়াতে হাতকাটা টুনটুনির বাড়িতে পুলিশ প্রহরা বসানো হয়েছে।

মঙ্গলবার সকালে সরজমিনে রূপপুর এলাকায় গিয়ে দেখা গেছে, পাকশী, বিবিসি বাজার ও রূপপুরমোড়ের আশপাশের এলাকায় দোকানপাট বন্ধ। আতঙ্কিত পাকশীবাসীর অনেকেই আতঙ্কে-ভয়ে দরজা-জানালা বন্ধ করে বাড়ির ভেতরে অবস্থান করছেন। খুব প্রয়োজন ছাড়া কেউ বাইরে বের হচ্ছেন না।

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের নিরাপত্তাকর্মী আবদুল মান্নান জানান, রোববার রাতের পর থেকেই রূপপুর এলাকায় দোকান পাট প্রায় বন্ধ রয়েছে। ভয়ে কেউ বাইরে বের হচ্ছে না।

আলাউদ্দিন আহমেদ/এএম/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :