‘সঠিক নজরদারি না থাকলে এমন ঘটনা ঘটতেই থাকবে’

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৫:৩৫ পিএম, ২৮ জুন ২০২১

সঠিক নজরদারি ও যথাযথ ব্যবস্থা না নিলে মগবাজারে যে বিস্ফোরণ হয়েছে, এর মত আরও ভয়াবহ ঘটনা ঘটতে পারে বলে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অধিদফতরের সাবেক মহাপরিচালক (ডিজি) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আলী আহাম্মেদ খান।

সোমবার (২৮ জুন) দুপুরে রাজধানীর মগবাজারে ঘটনাস্থলে পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

আলী আহাম্মেদ খান বলেন, আমাদের সেফটি সিকিউরিটি সিস্টেম উদ্বেগজনক। এই ঘটনা সবার জন্য অ্যালার্মিং। সঠিক নজরদারি ও ব্যবস্থাপনা না থাকলে এমন ঘটনা ঘটতেই থাকবে।

তিনি বলেন, আমরা ঘটনাস্থলে পরিস্থিতি ও বিস্ফোরণের বিষয়গুলো অবজার্ভ করতে আসছি। ঘটনাস্থলে আমরা এখনো ৮-৯ শতাংশ মিথেন গ্যাসের উপস্থিতি পেয়েছি। এখানে যদি বোম জাতীয় কিছু থাকত তাহলে আরও বেশি এক্সপ্লোরেশন হতে পারত।

ঢাকার প্রাণকেন্দ্র বলা যায় মগবাজার। এমন একটি জায়গায় এমন ভয়াবহ বিস্ফোরণের ঘটনা অব্যবস্থাপনা বা অনিয়মের কারণে ঘটছে বলে মনে করেন কি-না জানতে চাইলে সাবেক এ ফায়ার সার্ভিসের মহাপরিচালক বলেন, ঢাকাসহ সারাদেশেই উন্নয়নের কাজ চলছে। দ্রুত নগরায়ন শিল্পায়ন হচ্ছে। এসব কাজে অনেকক্ষেত্রে বিল্ডিং কোড বা নির্মাণ কাজের ফায়ার নির্দেশনা মানা হচ্ছে না। যে কারণে এ ধরনের ঘটনা ঘটছে।

jagonews24

তিনি আরও বলেন, এই ঘটনার নানামুখি তদন্ত চলছে। আমরা মনে করছি এটা বড় ধরনের জমে থাকা গ্যাসে এক্সপ্লোরেশন ঘটেছে। যেটা চারদিক ছড়িয়ে পড়েছে। ফায়ার সার্ভিস তদন্ত করছে। আশা করছি ঘটনার সঠিক কারণ উঠে আসবে এবং নিশ্চয় যথাযথ কর্তৃপক্ষ এই ঘটনাকে অ্যালার্মিং হিসেবে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন।

রোববার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় মগবাজারের ওয়্যারলেস গেট এলাকায় ফ্যাশন ও লাইফস্টাইল ব্র্যান্ড আড়ংয়ের শো-রুম লাগোয়া ভবনে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এই ঘটনায় এখন পর্যন্ত সাতজন নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এছাড়া আহত হয়েছেন ৬০ জনেরও বেশি মানুষ।

আহতদের মধ্যে ১৭ জনকে শেখ হাসিনা বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়েছে। বাকিদের আশপাশের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

টিটি/জেডএইচ/জেআইএম

টাইমলাইন  

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]