প্রিয়া সাহার বিরুদ্ধে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মামলা খারিজ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি ব্রাহ্মণবাড়িয়া
প্রকাশিত: ০৬:৩৯ পিএম, ২১ জুলাই ২০১৯

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ করে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করায় বাংলাদেশ হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের সাংগঠনিক সম্পাদক প্রিয়া সাহার বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহিতার অভিযোগে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় করা মামলাটি খারিজ করে দিয়েছেন আদালত।

রোববার বিকেলে চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মাসুদ পারভেজ মামলাটি খারিজ করে দেন।

মামলার বাদী পক্ষের আইনজীবী মফিজুর রহমান বাবুল বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে রোববার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মো. আসাদ উল্লহ্ নামের একজন বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেছিলেন।

মামলার এজাহারে বলা হয়, বাংলাদেশ একটি মুসলিম রাষ্ট্র হওয়া সত্ত্বেও ধর্মীয় শান্তি ও সম্প্রীতির রাষ্ট্র হিসেবে বিশ্বে পরিচিতি লাভ করেছে। উপমহাদেশের অন্যান্য রাষ্ট্রে মুসলমানরা যেসকল সুযোগ সুবিধা পাচ্ছে তার চেয়ে অনেকগুণ বেশি সুযোগ সুবিধা বাংলাদেশে হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ও অন্য ধর্মের লোকজন ভোগ করছে।

এজাহারে আরও বলা হয়, প্রিয়া সাহা একজন বাংলাদেশি নাগরিক হয়ে দেশের ভাবমূর্তির কথা চিন্তা না করে বাংলাদেশকে বিশ্বের কাছে হেয় করার জন্য ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে ৩ কোটি ৭০ লাখ হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান গুম হয়ে গেছে এবং মুসলিম মৌলবাদীরা ঘর-বাড়ি পুড়িয়ে দিয়েছে, জায়গা দখল করেছে বলে বিচার চান। এটি বাংলাদেশের রাষ্ট্র ও সরকারের বিরুদ্ধে মিথ্যাচার ছাড়া কিছুই না। এটি রাষ্ট্রদ্রোহিতার শামিল।

মামলার বাদী মো. আসাদ উল্লাহ্ সাংবাদিকদের জানান, প্রিয়া সাহা মিথ্যাচার করে বাংলাদেশকে বিশ্বের কাছে হেয় করেছেন। সেজন্য তিনি স্বপ্রণোদিত হয়ে মামলাটি দায়ের করেন।

আজিজুল সঞ্চয়/এমবিআর/জেআইএম

টাইমলাইন