শিল্পকলায় দর্শকপূর্ণ হলে মঞ্চস্থ হলো ‘নায়ক ও খলনায়ক’

বিনোদন প্রতিবেদক
বিনোদন প্রতিবেদক বিনোদন প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০১:০৮ এএম, ২১ মে ২০২২
‘নায়ক ও খলনায়ক’ নাটকের একটি দৃশ্য। ছবি সংগৃহীত

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমিতে দর্শকপূর্ণ হলে মঞ্চস্থ হলো অনুশীলন নাট্যদল প্রযোজিত ও নাট্যকার মলয় ভৌমিক রচিত ও নির্দেশিত নাটক ‘নায়ক ও খলনায়ক’।

শুক্রবার (২০ মে) সন্ধ্যা ৭টা ৩৫ মিনিটে একাডেমির জাতীয় নাট্যশালার মূল হলে শুরু হয় নাটকটি। এসময় কানায় কানায় দর্শকে পূর্ণ হয়ে যায় মূল হল।

এক ঘণ্টা ২০ মিনিটের নাটকটিতে অভিনয় করেন ফাতেমা তুজ জোহরা যুথি, তানজিমা মাহজাবীন, সাদিয়া আফরোজ ছন্দা, কঙ্গনা সরকার মিল্টি, রাকিবুল আলম মিলন, স্বাধীন খান, হৃদয় সাহা, লিমন বিশ্বাস, আরিফুল ইসলাম, হৃদয় তালুকদার, মোশারফ হোসেন আবির ও সুব্রত কুমার হালদার।

নাটকের সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন শৌভিক রায়। নৃত্য পরিচালনা করেছেন ল্যাডলী মোহন মৈত্রেয়। মঞ্চসজ্জা করেছেন মনির উদ্দিন আহাম্মেদ ও কনক কুমার পাঠক।

নাটক শেষে মঞ্চে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন খ্যাতিমান অভিনেতা, মঞ্চনির্দেশক ও নির্মাতা রামেন্দু মজুমদার, নন্দিত নাট্যনির্দেশক সৈয়দ জামিল আহমেদ, অধ্যাপক আব্দুস সেলিম ও নাট্যকার মলয় ভৌমিক।

jagonews24                         নাটক শেষে মঞ্চে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখছেন অতিথিরা 

নাটকটি প্রসঙ্গে নাট্যকার মলয় ভৌমিক বলেন, দর্শক হলো দেবতা। সেই দর্শকের যদি নাটক ভালো লেগে থাকে তাহলেই নির্মাতার স্বার্থকতা। ‘নায়ক ও খলনায়ক’ নাটক দেখার জন্য সকল দর্শককে জানাই অশেষ কৃতজ্ঞতা!

নাটক দেখতে আসা প্রেস ইনস্টিটিউট বাংলাদেশের (পিআইবি) প্রভাষক শুভ কর্মকার বলেন, নায়ক ও খলনায়ক নাটকটি বর্তমান সমাজের প্রতিচ্ছবি। এখানে সম্প্রতি বাংলাদেশের নানা অসঙ্গতি ও ইতিহাসের চিরন্তন সত্যকে নাটকীয়তার মাধ্যমে উপস্থাপন করা হয়েছে। আশাকরি নাটকটি দর্শকদের বোধে নাড়া দিতে সক্ষম হবে।

অনুশীলনের বর্তমান ও সাবেক কর্মীরাসহ ঢাকা ও ঢাকার আশেপাশের বিভিন্ন নাট্যদলের কর্মীরাও নাটকটি উপভোগ করেন।

বিএ/এমকেআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]