শ্রীলঙ্কায় তীব্র অর্থনৈতিক সংকট: প্রেসিডেন্টের পদত্যাগ দাবি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৭:২২ পিএম, ১৬ মার্চ ২০২২
ছবি: সংগৃহীত

করোনা মহামারি শুরু হওয়ার পরই শ্রীলঙ্কা তীব্র অর্থনৈতিক সংকটে পড়ে। গত কয়েক দশকের মধ্যে দেশটি এমন সংকট দেখেনি। এমন পরিস্থিতিতে সেখানে সরকার বিরোধী আন্দোলন জোরদার হচ্ছে। অনেকেই প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপাকসের পদত্যাগ দাবি করছেন। আল-জাজিরার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

মঙ্গলবার কলোম্বর প্রেসিডেন্টের কার্যালয়ের বাইরে হাজার হাজার মানুষ জড়ো হয়ে বিক্ষোভ শুরু করে। শ্রীলঙ্কার বিরোধীদল ইউনাইটেড পিপল’স ফোর্স এ বিক্ষোভের নেতৃত্ব দেন।

বিরোধী নেতা সজিথ প্রেমাদাসা এতে বক্তব্য দেন। তিনি বলেন, সরকারকে সরিয়ে দেওয়ার জন্য আন্দোলন শুরু হয়ে গেছে। তিনি জনসাধারণর উদ্দেশ্য বলেন, দুই বছর ধরে আপনারা সংগ্রাম করছেন। আরও কষ্ট কি আপনারা করতে চান? বর্তমান সরকারকে অশুভ শক্তি বলেও অভিহিত করেন তিনি।

jagonews24

বিক্ষোভকারীরা সরকারের বিরুদ্ধে অর্থনীতির অব্যবস্থাপনা ও বৈদেশিক মুদ্রার সংকট সৃষ্টির অভিযোগ তুলেছেন। এজন্য দেশে প্রয়োজনীয় জ্বালানি, রান্নার গ্যাস, গুড়াদুধ ও ওষুধের ঘাটতি দেখা দিয়েছে বলেও অভিযোগ করেন তারা।

জানা গেছে, বৈদেশিক রিজার্ভের পরিমাণ কমে যাওয়ায় দেশটির সরকার আমদানির অর্থ পরিশোধে হিমশিম খাচ্ছে। পর্যাপ্ত জ্বালানি না থাকায় প্রভাব পড়েছে পরিবহনের ওপর। এদিকে বেড়েছে লোডশেডিংও।

তাছাড়া মুদ্রার অবমূল্যায়নের ফলে পণ্যের মূল্য লাফিয়ে বেড়েছে। এমন অবস্থায় সরকার কিছু ফল ও দুগ্ধ পণ্য আমদানি নিষিদ্ধ করেছে। এর আগে গাড়ি, টাইলসসহ বেশি কিছু পণ্য আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা দেয় শ্রীলঙ্কান সরকার।

এমএসএম/জিকেএস

টাইমলাইন  

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]