কুষ্টিয়ায় ছেলেধরা সন্দেহে মানসিক ভারসাম্যহীন নারীকে গণপিটুনি

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি কুষ্টিয়া
প্রকাশিত: ০৪:৩৫ পিএম, ২২ জুলাই ২০১৯
প্রতীকী ছবি

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে ছেলেধরা সন্দেহে হাসিনা বেগম (৫৫) নামে এক মানসিক ভারসাম্যহীন নারীকে গণপিটুনি দিয়েছে এলাকাবাসী। সোমবার সকালে উপজেলার রিফাইতপুর ইউনিয়নের শিতলাইপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, দৌলতপুর মাস্টারপাড়া গ্রামের আশিকুর রহমান রনির বাড়িতে তার মানসিক ভারসাম্যহীন শাশুড়ি চিকিৎসাধীন ছিল। সকালে কাউকে কিছু না বলে বাড়ির বাইরে বের হয়ে শিতলাইপাড়ার দিকে গেলে জনগণ তাকে ছেলেধরা মনে করে গণপিটুনি দেয়। এতে হাসিনা বেগমের কপাল ফেটে যায়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে তাকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়। পরে হাসিনা বেগমের জামাই রনি তাকে হাসপাতাল থেকে বাড়িতে নিয়ে যায়।

দৌলতপুর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজম খান বলেন, ছেলেধরা সন্দেহে এক নারীকে পিটিয়ে আহত করেছে এলাকাবাসী। পুলিশ তাকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেছে। এ ঘটনায় ওই নারীর পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ দিলে মামলা নেয়া হবে।

আল মামুন সাগর/আরএআর/এমএস

টাইমলাইন  

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]