পরীমনি অভিযোগ করলে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া হবে : পুলিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০১:৫৫ এএম, ১৪ জুন ২০২১ | আপডেট: ০৪:৪৭ পিএম, ১৪ জুন ২০২১

ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ করে দেয়া ঢাকাই সিনেমার নায়িকা পরীমনির ফেসবুক স্ট্যাটাসটি পুলিশ সদর দফতরের নজরে এসেছে। এ ঘটনায় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হচ্ছে। তবে পরীমনি পুলিশের কাছে এখনও কোনো লিখিত অভিযোগ করেননি।

রোববার (১৩ জুন) রাতে পুলিশ সদর দফতরের সহকারী মহাপরিদর্শক (এআইজি-মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স) মো. সোহেল রানা জাগো নিউজকে এসব কথা জানান।

তিনি বলেন, ‘পরীমনির ফেসবুক স্ট্যাটাস পুলিশ সদর দফতরের নজরে এসেছে। পু‌লি‌শের সঙ্গে যোগা‌যোগ কর‌লে এ‌ বিষ‌য়ে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া হ‌বে। তবে ইতোমধ্যে উপযুক্ত ব্যবস্থা নি‌তে সং‌শ্লিষ্ট ইউ‌নিট‌কে নি‌র্দেশ দেয়া হ‌য়ে‌ছে।’

পুলিশ সদর দফতরের আরেকজন কর্মকর্তা বলেন, পরীমনির অভিযোগের বিষয়ে বিস্তারিত জানার চেষ্টা চলছে। তিনি পুলিশের প্রয়োজনীয় ও উপযুক্ত সেবা পাবেন। উপযুক্ত বিচার পাবেন।

এর আগে রোববার রাত ৮টার দিকে নিজের ভেরিফাইড ফেসবুক পেজে স্ট্যাটাস দিয়ে পরীমনি তাকে ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ করেছেন। তাকে নির্যাতনও করা হয়েছে বলে দাবি করেছেন তিনি। এজন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাহায্য চেয়েছেন। সেখানে প্রধানমন্ত্রীকে মা ডেকে তার কাছে সঠিক বিচার ও মেয়ে হিসেবে আশ্রয় চেয়েছেন পরীমনি।

স্ট্যাটাস দেয়ার পর রোববার রাতে বনানীর নিজ বাসায় সাংবাদিকদের তিনি বলেন, গত বুধবার রাতে উত্তরার বোট ক্লাবে ঘটনাটি ঘটে। নাসির ইউ. মাহমুদ নামে একজন তাকে জোর করে মদ খাইয়ে এ ঘটনা ঘটাতে চেয়েছিলেন।

সাংবাদিকদের পরীমনি আরও বলেন, ‘সেখানে নাসির ইউ. মাহমুদ আমাকে মদ খেতে অফার করেন। আমি রাজি না হলে আমাকে জোর করে মদ খাওয়ানোর চেষ্টা করেন। একপর্যায়ে আমাকে চড়-থাপ্পড় মারেন। তারপর আমাকে নির্যাতন ও হত্যার চেষ্টা করেন। অমিও এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত।’

এ বিষয়ে অভিযোগ জানাতে বনানী থানায় গিয়েছিলেন দাবি করে পরীমনি বলেন, ‘থানায় লিখিত অভিযোগ দিতে গিয়েছিলাম। কিন্তু তারা আমার অভিযোগ শুনলেও লিখিত কোনো কাগজপত্র নেয়নি। থানা থেকে তেমন কোনো সাড়া না পেয়ে চলে আসি।’

টিটি/এমএইচআর

টাইমলাইন  

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]