ইরাকি বাহিনীকে মার্কিন ঘাঁটি থেকে দূরে থাকতে সতর্কতা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০:৪৭ এএম, ০৫ জানুয়ারি ২০২০

ইরাকি বাহিনীকে মার্কিন বাহিনীর সামরিক ঘাঁটি থেকে দূরে থাকার আহ্বান জানিয়েছে ইরাকের শিয়াভিত্তিক আধাসামরিক বাহিনী কাতায়েব হিজবুল্লাহ। ইরাকের হাশেদ আল-শাবি সামরিক নেটওয়ার্কের আওতাধীন কট্টর ইরানপন্থি এই সংগঠনটি ইরাকি বাহিনীকে সতর্ক করে বলেছে, আমরা দেশের নিরাপত্তা বাহিনীকে আহ্বান জানাচ্ছি তারা যেন মার্কিন ঘাঁটি থেকে কমপক্ষে ১শ মিটার দূরে অবস্থান করে।

শনিবার মার্কিন দূতাবাস এবং মার্কিন সেনাদের একটি ঘাঁটিতে মর্টার ও রকেট হামলার পর পরই এমন বিবৃতি দিল যুক্তরাষ্ট্রের তীব্র বিরোধী এই সংগঠনটি। শনিবার রাজধানী বাগদাদে যুক্তরাষ্ট্রের বিমান বাহিনীর একটি ঘাঁটিতে দুটি রকেট হামলার ঘটনা ঘটেছে।

অন্যদিকে বাগদাদের সুরক্ষিত গ্রিন জোনে মার্কিন দূতাবাসের কাছে আঘাত করেছে দুটি মর্টারের গোলা। ইরাকি নিরাপত্তা সূত্র জানিয়েছে, এসব হামলায় কেউ হতাহত হয়নি।

শুক্রবার ইরাকের রাজধানী বাগদাদের আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে যুক্তরাষ্ট্রের এক হামলায় ইরানের কুর্দস বাহিনীর ক্ষমতাধর জেনারেল কাসেম সোলেইমানি এবং এক ইরাকি মিলিশিয়া প্রধান নিহত হন। সোলেইমানির মৃত্যুর পর বাগদাদে এসব হামলার ঘটনাকে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতি ইরানের বদলার প্রথম ধাপ বলে মনে করা হচ্ছে।

এএফপির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, কিরকুক প্রদেশে নিজেদের ঘাঁটির ওপর মার্কিন জোটের বিমান পাহারা দিচ্ছে। ওই এলাকায় বার বার এসব বিমানকে টহল দিতে দেখা গেছে।

অপরদিকে, ইরানের ৫২ স্থানে কঠোর হামলার হুমকি দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি বলেছেন, ইরান যদি আমেরিকানদের ওপর বা যুক্তরাষ্ট্রের কোনো সম্পদ লক্ষ্য করে হামলা চালায় তবে তেহরানের ৫২ স্থানে ভয়াবহ হামলা চালানো হবে।

এক টুইট বার্তায় ইরানকে হুমকি দিয়ে ট্রাম্প বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্র ইরানের ৫২ স্থানকে টার্গেট করেছে। এর মধ্যে কিছু ইরানের প্রথম সারির এবং খুবই গুরুত্বপূর্ণ স্থান। এগুলো ইরানের সংস্কৃতি এবং ইরানিদের কাছে খুব গুরুত্বপূর্ণ। এসব স্থানে খুব দ্রুত ভয়াবহ হামলা চালানো হবে।

টিটিএন/পিআর

টাইমলাইন  

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]