মোদির সঙ্গে আলোচনায় ইমরানের না

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:৪১ পিএম, ২২ আগস্ট ২০১৯

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে আলোচনায় বসতে রাজি নন বলে জানিয়েছেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। সম্প্রতি ভারত পাকিস্তানের মধ্যে চলমান উত্তেজনা নিরসনে মোদি এবং ইমরানকে আলোচনার আহ্বান জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তার ওই প্রস্তাবের পরেই মোদির সঙ্গে আলোচনায় অনাগ্রহের কথা ঘোষণা করলেন ইমরান।

গত ৫ আগস্ট সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বাতিলের মাধ্যমে কাশ্মীরের ওপর থেকে ভারত বিশেষ মর্যাদা তুলে নেয়ার পর থেকেই পাকিস্তানের সঙ্গে নতুন করে উত্তেজনা শুরু হয়েছে। এর মধ্যে বেশ কয়েকবার দু'দেশ সীমান্তে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েছে। এতে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়।

ভারত পাকিস্তানের উত্তেজনার মধ্যেই কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে মধ্যস্থতার প্রস্তাব দেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এর আগেও এ বিষয়ে সমস্যা সমাধানের আগ্রহ প্রকাশ করেছেন তিনি। গত এক মাসে এ নিয়ে তৃতীয়বার কাশ্মীর ইস্যুতে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে মধ্যস্থতার প্রস্তাব দিলেন তিনি।

গত মঙ্গলবার প্রথমে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এবং পরে পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে ফোনে কথা হয় ট্রাম্পের। তারপরেই হোয়াইট হাউসের সাংবাদিক বৈঠকে কাশ্মীর নিয়ে মধ্যস্থতার প্রস্তাব দেন ট্রাম্প। একই সঙ্গে তিনি এ বিষয়ে দু'দেশকে আলোচনার আহ্বান জানিয়েছেন।

কিন্তু ভারতের সঙ্গে কোনও আলোচনায় বসতেই রাজি নন বলে জানিয়ে দিয়েছেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। এর পাশাপাশি ইমরান জানিয়েছেন, ভারতের সঙ্গে কথা বলে কোন লাভ নেই। আমি অনেক চেষ্টা করেছি কিন্তু এখন ফিরে দেখলে মনে হয় দু'দেশের মধ্যে শান্তি বজায় রাখার জন্য যা করেছি তা দুর্বলতা হিসেবে দেখা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ভারতের তরফ থেকে কোনও পদক্ষেপ নেওয়া হলে পাকিস্তান তার যোগ্য জবাব দেওয়ার জন্য তৈরি রয়েছে। ইমরান বলেন, কাশ্মীরে মিথ্যা অভিযান শুরু করতে পারে ভারত। পরমাণু শক্তিধর দুই দেশ যখন যুদ্ধের হঁশিয়ারি দেয় তখন যে কোনো কিছু হতে পারে।

টিটিএন/এমকেএইচ

টাইমলাইন