কাশ্মীরে বিক্ষোভ, পাথরের আঘাতে সেনাবাহিনীর ট্রাক চালক নিহত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:০৪ পিএম, ২৬ আগস্ট ২০১৯

বিশেষ মর্যাদা বাতিলের জেরে কার্যত অবরুদ্ধ ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু-কাশ্মীরে বিক্ষোভকারীদের ছোড়া পাথরের আঘাতে দেশটির সেনাবাহিনীর এক ট্রাকচালক নিহত হয়েছেন। সোমবার কাশ্মীরের পুলিশের বরাত দিয়ে ফরাসী বার্তাসংস্থা এএফপি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

এতে বলা হয়েছে, চতুর্থ সপ্তাহের মতো কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা উপেক্ষা করে কাশ্মীরে বিক্ষোভ অব্যাহত রেখেছেন সেখানকার বাসিন্দারা। এতে বিক্ষোভকারীদের পাথরের আঘাতে এক ট্রাক চালকের প্রাণহানি ঘটেছে।

ফ্রান্সে জি-সেভেন সম্মেলনে কাশ্মীরের চলমান সঙ্কট নিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বৈঠকের আগে এই প্রাণহানির ঘটনা ঘটলো। বৈঠকে কাশ্মীরের যোগাযোগ ব্যবস্থা পুনর্বহাল এবং ভারত সরকারকে সর্বোচ্চ সংযম দেখানোর জন্য মোদিকে চাপ দিতে পারেন ট্রাম্প।

গত ৫ আগস্ট মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ ভূস্বর্গ খ্যাত কাশ্মীরের স্বায়ত্তশাসন সংক্রান্ত সংবিধানের বিশেষ মর্যাদা বাতিল করে দেশটির ক্ষমতাসীন হিন্দুত্ববাদী সরকার। ১৯৮৯ সাল থেকে ভারত শাসনের বিরুদ্ধে কাশ্মীরিরা আন্দোলন করে আসছে। আন্দোলনকারীদের সঙ্গে আইন-শৃঙ্খলাবাহিনীর সদস্যদের সংঘর্ষে হাজার হাজার কাশ্মীরির প্রাণহানি ঘটেছে; যাদের অধিকাংশই বেসামরিক।

বিশেষ মর্যাদা বাতিলের আগেই কাশ্মীরে কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করে বিজেপি সরকার। কাশ্মীরকে শান্ত রাখতে সেখানে অতিরিক্ত পাঁচ লাখ সেনা মোতায়েন, ফোন ও ইন্টারনেট সংযোগ বিচ্ছিন্ন এবং জনসাধারণের চলাচলের ওপর কড়াকড়ি আরোপ করা হয়। এছাড়া গ্রেফতার করা হয় হাজার হাজার কাশ্মীরিকে।

রাস্তায় রাস্তায় তল্লাশি, সেনা টহল, ব্যারিকেড নির্মাণ করা হলেও কাশ্মীরিদের বিক্ষোভ দমাতে পারেনি এসবের কিছুই। সেখানে প্রায় প্রত্যেকদিনই নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়াচ্ছেন ক্ষুব্ধ কাশ্মীরিরা।

রোববার কাশ্মীরের অনন্তনাগ জেলায় বিক্ষোভকারীরা সেনাবাহিনীর একটি ট্রাকে পাথ নিক্ষেপ করে। এ সময় ট্রাক চালক মাথায় গুরুতর আঘাত পান। পরে মারা যান তিনি। এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে অনন্তনাগ থেকে দু'জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে ভারতের সরকারি বার্তাসংস্থা প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে।

সূত্র : ফ্রান্স ২৪।

এসআইএস/এমকেএইচ

টাইমলাইন