কাশ্মীর হামলায় পাকিস্তানের ‘সরাসরি হাত’ রয়েছে : ভারত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০:০০ এএম, ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

ভারতশাসিত জম্মু-কাশ্মীরে বোমা হামলায় দেশটির সেন্ট্রাল রিজার্ভ পুলিশ ফোর্সের (সিআরপিএফ) অন্তত ৪০ জন সদস্য নিহত হওয়ার ঘটনায় পাকিস্তানের ‘সরাসরি হাত’ রয়েছে বলে দাবি করছে ভারত। ভারত বলছে, এ সংক্রান্ত ‘অকাট্য প্রমাণ’ তাদের কাছে রয়েছে।

মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএন’র এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, শুক্রবার ভারতের কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা নিরাপত্তা সংক্রান্ত এক জরুরি বৈঠক করে। বৈঠক শেষে দিল্লির পক্ষ থেকে একটি বিবৃতি দেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুন জেটলি।

অরুন জেটলি বিবৃতিতে বলেন, ‘ভারত এ ব্যাপারে সম্ভাব্য সব ধরনের কূটনৈতিক পদক্ষেপ নেবে যাতে পাকিস্তান আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। কাশ্মিরের এই সন্ত্রাসী হামলায় পাকিস্তানের যে ‘সরাসরি হাত’ রয়েছে তার ‘অকাট্য প্রমাণ’ আমাদের কাছে আছে।’

অরুন জেটলি আরও বলেন, ‘পাকিস্তানের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্কের মর্যাদা হ্রাস করবে ভারত। পাকিস্তান যে বিশেষ সুবিধাপ্রাপ্ত দেশের তালিকায় রয়েছে সেখান থেকে তাদের নাম বাদ দেয়া হবে।’

southeast

বৃহস্পতিবার রাজ্যের পুলওয়ামা জেলার আওয়ান্তিপুরা এলাকায় দেশটির সিআরপিএফ’র অন্তত ৪০ জন সদস্য নিহত হয়েছেন। বলা হচ্ছে, ১৯৮০’র দশকে কাশ্মিরে হামলার গোরাপত্তন হওয়ার পর থেকে এটাই সবচেয়ে ভয়াবহ হামলার ঘটনা।

পাকিস্তানভিত্তিক সশস্ত্র সংগঠন জঈশ-ই-মহম্মদ এই হামলার দায় স্বীকার করেছে। সংগঠনটির একজন মুখপাত্র বলেছেন, এটি আত্মঘাতী হামলা। আদিল আহমাদ এই হামলা চালান। তিনি ২০১৮ সালে সংগঠনটিতে যোগ দিয়েছিলেন।

ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘আমরা দাবি করছি পাকিস্তান সন্ত্রাসীদের সমর্থন দেয়া বন্ধ করুক। তাছাড়া তারা বিভিন্ন সন্ত্রাসী সংগঠনগুলোকে তাদের দেশ থেকে হামলা করার সুযোগ তৈরি করে দিচ্ছে তাও বন্ধ করা দরকার। সন্ত্রাসীদের বিভিন্ন স্থপনা অভিযান চালিয়ে ধ্বংস করে দেয়া উচিত তাদের।’

এসএ/এমএস

টাইমলাইন