কাবুল থেকে ফিরে ভারতীয় রাষ্ট্রদূত বললেন, আফগানদের ছেড়ে আসিনি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৪২ পিএম, ১৭ আগস্ট ২০২১
এই প্লেনেই ছিলেন ভারতীয় রাষ্ট্রদূত

তালেবান ক্ষমতা দখলের পর জরুরি ভিত্তিতে আফগানিস্তান থেকে নিজেদের রাষ্ট্রদূত ও দূতাবাসে কর্মরত অন্য কর্মীদের ফিরিয়ে নিয়েছে ভারত। মঙ্গলবার নিজ দেশে ফিরেছেন আফগানিস্তানে নিযুক্ত ভারতীয় রাষ্ট্রদূতসহ কাবুল দূতাবাসের শতাধিক কর্মকর্তা-কর্মচারী। এ অবস্থায় ভারতের মাটিতে পা রেখে দেশটির রাষ্ট্রদূত বলেছেন, আমরা আফগানিস্তানের মানুষদের ছেড়ে আসিনি। খবর হিন্দুস্তান টাইমসের।

ভারতীয় রাষ্ট্রদূত রুদ্রেন্দ্র ট্যান্ডন বলেন, আমরা আফগানদের ভুলিনি। তাদের সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক অনেক গভীর। আমরা আমাদের সম্পর্ক বজায় রাখব, তবে সেটি কোন আকারে হবে তা এখনই বলা যাচ্ছে না। অবস্থার পরিবর্তন হচ্ছে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবর, কাবুলের হামিদ কারজাই বিমানবন্দর থেকে রওয়ানা দিয়ে স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে গুজরাট বিমানবন্দরে অবতরণ করে ভারতীয় বিমান বাহিনীর একটি প্লেন। এতে রাষ্ট্রদূত রুদ্রেন্দ্র, মাজার-ই-শরীফ, কান্দাহার, জালালাবাদে কর্মরত ভারতীয় দূতাবাসের কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ অন্তত ১৩০ জন ভারতীয় ছিলেন বলে জানা গেছে।

গণমাধ্যমের খবর অনুসারে, এরই মধ্যে কাবুলের ভারতীয় দূতাবাস বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। যেসব ভারতীয় এখনো নিজ দেশে ফিরতে পারেননি তাদের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখছে কর্তৃপক্ষ। এছাড়া, ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে জানানো হয়েছে, যেসব হিন্দু ও শিখ আফগান দেশ ছাড়তে চান, তাদের আশ্রয় দিতে রাজি ভারত।

jagonews24

রুদ্রেন্দ্র ট্যান্ডন জানিয়েছেন, যতদিন আফগানিস্তান থেকে সব ভারতীয় নিজ দেশে ফিরতে না পারছেন, ততদিন এয়ার ইন্ডিয়ার ফ্লাইট চালু থাকবে।

এর আগে, গত ১৫ আগস্ট ভারতীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র অরিন্দম বাগচি জানিয়েছিলেন, কাবুলের বর্তমান পরিস্থিতিতে ভারতের রাষ্ট্রদূতসহ অন্য কর্মীদের শিগগিরই ফিরিয়ে নেওয়া হবে। এ জন্য ওইদিনই কাবুলে রওয়ানা দিয়েছিল ভারতীয় বিমান বাহিনীর দুটি প্লেন। তবে সোমবার বিমানবন্দরের পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাওয়ায় ভারতীয়দের দেশে ফেরা সংশয়ের মধ্যে পড়ে। অবশ্য এর একদিন পরেই শতাধিক ভারতীয় নিরাপদে নিজ দেশে ফিরতে পেরেছেন।

কেএএ/এমকেএইচ

টাইমলাইন  

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]